মেইন ম্যেনু

রাস্তায় পড়ে থাকা সদ্য ভূমিষ্ঠ নবজাতক ও পাগলী মায়ের প্রতি পুলিশ কর্মকর্তার ভালবাসা

গত ৪ সেপ্টেম্বর সকাল ১০ ঘটিকায় আগ্রাবাদ জনতা ব্যাংকের সামনে একজন মানসিক ভারসাম্যহীন মহিলা রাস্তার উপর হঠাৎ প্রসব ব্যাথায় ছটপট করতে থাকে। ঐ মহিলা যখন প্রসব ব্যথায় ছটপট করছিল তখন আশপাশের অনেক উৎসুক জনতা ব্যস্ত ছিল তাদের স্মার্ট ফোনে ছবি ও ভিডিও ধারণ করতে। এক সময় কঠিন, তপ্ত রাস্তার উপরই ফুটফুটে একটি সন্তান প্রসব করে মহিলাটি।

ঠিক তখনই ঐ মোড়ে কর্তব্যরত ছিলেন ডবলমুরিং থানাধীন আগ্রাবাদ পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এএসআই পল্টু বড়ুয়া। রাস্তার উপর উৎসুক জনতার ভীড় দেখে দ্রুত এগিয়ে যান তিনি। কাছে গিয়ে দেখতে পান এক অসহায় সদ্য প্রসূত মা ও তার সন্তানকে রাস্তার উপর পড়ে থাকতে। দ্রুত সাহায্যের জন্য একটি রিক্সা ডেকে আনেন তিনি। তারপর নিজ হাতে অসুস্থ্য মা ও তার সন্তানকে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যান আগ্রাবাদ মা ও শিশু হাসপাতালে।

শুরু হয় আরেক অধ্যায়ের। অভিভাবক নেই বলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাকে হাসপাতালে ভর্তি করাতে অস্বীকৃতি জানান। তখন এএসআই পল্টু বড়ুয়া দৃঢ চিত্তে তার অভিভাবকের দায়িত্ব গ্রহণ করে তাকে সুচিকিৎসার জন্য কর্তব্যরত ডাক্তারকে অনুরোধ করেন। একজন পুলিশ সদস্যের অনুরোধে ডাক্তার তাকে হাসপাতালে ভর্তি করান এবং চিকিৎসা দেন। বর্তমানে সেই মহিলা তার সন্তানসহ আগ্রাবাদ মা ও শিশু হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছে।






মন্তব্য চালু নেই