মেইন ম্যেনু

নিউমার্কেটের রেস্টুরেন্টে খাবারে পোকা, প্রতিবাদ করলে গুন্ডা দিয়ে ভয় দেখিয়ে রাখে বেশী বিল

সম্প্রতি রাজধানীর নিউ মার্কেটের একটি রেস্টুরেন্টে তিন তরুনী খাবার খেতে গিয়ে হঠাৎ খাদ্যে দেখতে পান পোকা! সাথে সাথে প্রতিবাদ করলে গুন্ডা দিয়ে ভয় দেখিয়ে উল্টো তাদের কাছ থেকে রেস্টুরেন্ট মালিক কষে অতিরিক্ত বিল। পরে ওদের মধ্যে Tahmina Dilshad Buly নামক এক তরুণী ফেসবুকের পাবলিক গ্রুপ Food Bloggers BD নামে একটি পেজে স্ট্যাটাস দেন।

আওয়ার নিউজ বিডি’র পাঠকদের জন্য স্ট্যাটাসটি নিচে হুবহু দেওয়া হলো :

“গিয়েছিলাম নিউমার্কেট। একগাদা শপিং শেসে ক্লান্ত আমি আর আমার দুই বান্ধবি বসেছিলাম গিয়ে এক খাবারের দোকানে। লাচ্ছি, ফুচকা, দই ফুচকা, কোল্ড কফি, ফালুদা। ফুচকা আসার সাথে সাথেই দেখি ফুচকার কিমার ভিতর থেকে এক পোকা তার ঠ্যাং নিয়ে চিত হয়ে পরে আছে।
হায়! হায়! এই টা কি!
আরেকটু উকি মারতেই দেখি, আরেক ফুচকায় মশা মরে উলটে আছে।কেম্নে কি!
এইগুলা কি? নিয়া যান। আমরা খাব না।
প্লেট বদলে দিচ্ছি।
না, না। আমরা ফুচকা খাব না। দই ফুচকা অ না।
কিমার ভিতর পোকা ছিল।দই ফুচকায় ও অই পোকার কিমা ভরা।
ফাইজলামি নাকি? অর্ডার করছেন খাবেন না?
কোথথেকে ষন্ডা মার্কা তিন লোক এসে হাজির। বিল দিতে হবে।
বিল দিব কেন? আমরা তো খাই নি। পোকা ফুচকার বিল দিব কেন? অন্য খাবার যা খেয়েছি, তার বিল দিব। ফুচকা, দই ফুচকার বিল দিব না। আমি তো দই ফুচকা সাথে সাথেই নিষেধ করেছি।
না, দিতে হবে। অর্ডার করছেন, দেয়া লাগবেই।
আমার বান্ধবি আমার হাত চেপে ধরেছে ততক্ষনে। লোকগুলারে দেখ, বুলি। এর পর কথা কইস।
ভাই বিল কত বলেই সে ৫০০ টাকার নোট দিয়ে দিল।
অই লোক কোল্ড কফিতে ২০ টাকা, লাচ্ছিতে ২০ করে ৪০ টাকা, টোটাল ৬০ টাকা বাড়িয়ে রাখল। আমি ততক্ষনে অতি শোকে পাথর। ভয়ে, কাতর।
মিন মিন করে বললাম, আপনার দাম তো price list এ অনেক কম লিখা আছে। আপনি এতো বেশি নিচ্ছেন কেন?
অইটা printing mistake.
ভালয় ভালয় বেড়োন।
আমরা সত্যি ভয় পেয়েছি।পোকা খাবার দেয়ার পর ও তাদের হম্বি তম্বি! সাথে মাস্তান নিয়ে আসা। ওরা পারে ও। ঘার গুঁজে মার খাওয়া বিড়ালের মত,আমরা কুই কুই করে বের হয়ে এসেছি। আমার অত সাহস নেই। সবচেয়ে কষ্ট লেগেছে, ওখানে বসে ছিল আরো ৪ টা কাপল। কেউ একটা টু শব্দ ও করেনি, আমাদের এই হেনস্তা হওয়া দেখে ও।
খা, তোরা পোকা ফুচকা। তোরা তাই খাবার যোগ্য। নইলে ৮ টা মানুষ, সাথে আমরা ৩ জন। ১১ জনকে ভয় দেখায় কেম্নে!
ও বলতে ভুলে গেছি, আসার সময় আমাকে ওরা এক ফিচকে হাসি দিয়ে জানিয়েছে পোকা ওয়ালা ফুচকার নাকি ওরা বিল ই ধরেনি। শুধু দই ফুচকার ধরেছে। ওদের বিশাল দয়া।
৪০০ টাকা কিসের বিল কেটে রাখল বুঝলাম ই না… দোকানের ছবি তুলেছিলাম বাইরে দাঁড়িয়ে, এক লোক খুব করে তেড়ে এলো…আমরা দউর…”

Captureefr3r






মন্তব্য চালু নেই