মেইন ম্যেনু

লন্ডনে কেন নিষিদ্ধ হলো বিকিনি পরা মডেলের বিজ্ঞাপন

লন্ডনের বাসে-ট্রেনে ছিমছাম ফিগারের বিকিনি পরা মডেলদের ছবি আজ থেকে আর দেখা যাবে না।
লন্ডনের মেয়র সাদিক খান আজ থেকে লন্ডনের পরিবহন নেটওয়ার্কে এ ধরণের বিজ্ঞাপন নিষিদ্ধ করেছেন। দেখা যাবে না সুঠাম শরীরের পেশীবহুল পুরুষ মডেলদের ছবিও।

এ ধরণের বিজ্ঞাপনের মডেলদের যেরকম শরীর দেখানো হয় তাকে বাস্তবতা বর্জিত বলে মনে করেন অনেকে। তাই এ নিয়ে সমালোচনা বাড়ছিল।

বিশেষ করে মেয়েরা যেভাবে মডেলদের মতো ফিগার তৈরির জন্য কঠোর ডায়েটিং করে, তা তাদের স্বাস্থ্যের জন্য মারাত্মক হুমকি বলে মনে করেন অনেকে।

লন্ডন মেয়র সাদিক খান তার নির্বাচনী প্রচারণার সময় অঙ্গীকার করেছিলেন তিনি লন্ডনের বাসে-ট্রেনে এ ধরণের বিজ্ঞাপন নিষিদ্ধ করবেন। সেই নিষেধাজ্ঞা আজ থেকে কার্যকর হচ্ছে।

গত বছর লন্ডনের টিউবে ওজন কমানোর এক পণ্যের বিজ্ঞাপন তীব্র বিতর্ক সৃষ্টি করেছিল। ‘প্রোটিন ওয়ার্ল্ড’ নামের এক কোম্পানির বিজ্ঞাপনে এক সুতন্বী মডেলের বিকিনি পরা ছবির নীচে লেখা ছিল, “আর ইউ বীচ বডি রেডি”।

এই বিজ্ঞাপনের বিরুদ্ধে ব্রিটেনের অ্যাডভার্টাইজিং স্ট্যান্ডার্ড কর্তৃপক্ষের কাছে চারশোর বেশি অভিযোগ করা হয়।

এটিকে খুবই আপত্তিকর এবং দায়িত্বহীন বলে তীব্র সমালোচনা শুরু হয়। এই বিজ্ঞাপন প্রত্যাহারের এক আবেদনে সই করেন ৭০ হাজারের বেশি মানুষ।

বিশেষজ্ঞরা অনেক দিন থেকেই বলছেন যে বিজ্ঞাপনে নারীর যে হালকা-পাতলা শরীরকে ‘আদর্শ’ হিসেবে তুলে ধরা হয়, তা মেয়েদের জন্য ক্ষতিকর। এ ধরণের বিজ্ঞাপন মেয়েদের আত্মবিশ্বাস ধ্বংস করে দেয়।
অনেক মেয়ে এরকম ফিগার গড়তে গিয়ে নিজেদের স্বাস্থ্যের মারাত্মক ক্ষতি ডেকে আনছেন।






মন্তব্য চালু নেই