মেইন ম্যেনু

লাকসাম-আখাউড়া ডুয়েল গেজ, চুক্তি স্বাক্ষর

ঢাকা-চট্টগ্রাম রেলপথের লাকসাম থেকে আখাউড়া পর্যন্ত ডুয়েল গেজ ডাবল রেললাইন নির্মাণ এবং বিদ্যামন রেল লাইনকে ডুয়েল গেজে রূপান্তর করার লক্ষ্যে চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে। বুধবার এ চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে।

চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন বাংলাদেশ রেলওয়ের জেনারেল ম্যানেজার ও প্রকল্প পরিচালক সাগর কৃষ্ণ চক্রবর্তী এবং ম্যাক্স গ্রুপের চেয়ারম্যান গোলাম এম আলমগীর।

বার্তা সংস্থা বাসসের এক প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে, এ প্রকল্প বাস্তবায়নে ব্যয় হবে ছয় হাজার ৫০৪ কোটি ৫৪ লাখ টাকা। এ প্রকল্পে অর্থায়ন করবে বাংলাদেশ সরকার, এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক ও ইউরোপিয়ান ইনভেস্টমেন্ট ব্যাংক।

চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তৃতা দেন রেলপথমন্ত্রী মো. মুজিবুল হক। এতে অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা দেন রেল সচিব মো. ফিরোজ সালাহ উদ্দিন, বাংলাদেশ রেলওয়ের মহাপরিচালক মো. আমজাদ হোসেন, প্রকল্প পরিচালক ও জেনারেল ম্যানেজার সাগর কৃষ্ণ চক্রবর্তী, ম্যাক্স গ্রুপের চেয়ারম্যান গোলাম এম আলমগীর, বাংলাদেশ রেলওয়ের আখাউড়া-লাকসাম ডাবল ট্রাক প্রজেক্টের প্রকল্প ব্যবস্থাপক লী কুনকো। এই প্রকল্পের বাস্তবায়নকারী ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান হচ্ছে সিটিএম জয়েন্ট ভেঞ্চার গ্রুপ।

রেলপথমন্ত্রী মো. মুজিবুল হক নির্ধারিত সময়ের আগেই এ প্রকল্প বাস্তবায়ন করার জন্য ঠিকাদার প্রতিষ্ঠানের আহ্বান জানান। তিনি বলেন, এ প্রকল্প বাস্তবায়িত হলে ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম পর্যন্ত ৩২০ কিলোমিটার রেলপথ ডবল লাইনে উন্নীত হবে। এর ফলে ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম পর্যন্ত ট্রেন চলাচলে সময় হ্রাস পাবে এবং পণ্য পরিবহন ত্বরান্বিত হবে।

বাংলাদেশ রেলওয়ের মহাপরিচালক জানান, ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম পর্যন্ত রেলপথ ডবল লাইনে উন্নীত হলে বিরতিহীন ট্রেন চার থেকে সাড়ে চার ঘণ্টার মধ্যে পৌঁছতে সক্ষম হবে। এ ছাড়া অধিক সংখ্যক ট্রেন পরিচালনা ও পণ্যবাহী ট্রেন চলাচলের সংখ্যা বৃদ্ধি পাবে।






মন্তব্য চালু নেই