মেইন ম্যেনু

শরীর সুস্থ রাখতে লেবুর রস কতটা উপকার করে জানুন

ব্রেকফাস্ট হোক কিংবা লাঞ্চ বা ডিনার, চা-কফি খাওয়ার কোনও নির্দিষ্ট সময় নেই। সারাদিনে আমরা জল খেতে ভুলে গেলেও, চা-কফি খেতে মোটেই ভুলি না। কিন্তু সারাদিন প্রচুর পরিমানে জল খাওয়া আমাদের অবশ্যই উচিত্‌। জল কম খেলেই আমাদের শরীর অসুস্থ হয়ে পড়তে পারে। এমন অনেক মানুষ আছেন, যাঁরা জল খেতে একেবারেই পছন্দ করেন না। অথচ জলটা খাওয়া দরকার। তাঁরা জলে এক টুকরো লেবুর রস মিশিয়ে খেতে পারেন। এতে জল খাওয়ার পাশাপাশি আমাদের শরীরের অনেক উপকারও হবে।

তাহলে জেনে নিন জলে লেবু মিশিয়ে খেলে আমাদের শরীরের কোন কোন উপকার হয়-

১) বাজার চলতি বিভিন্ন প্রসাধনী দ্রব্য উজ্জ্বল ত্বকের প্রতিশ্রুতি দেয়। কিন্তু তা কখনওই স্থায়ী হয় না। সাময়িকভাবে আপনার ত্বকের ঔজ্জ্বল্য বাড়লেও, সেই প্রসাধনী দ্রব্য ব্যবহার বন্ধ করে দিলেই আপনার ত্বক আবার আগের মতো হয়ে যায়। জলে লেবুর রস মিশিয়ে খান। এতে যেমন আপনার ত্বক সুস্থ থাকবে, তেমনই ত্বকের ঔজ্জ্বল্যও বাড়বে। শুধু তাই নয়, লেবুর জল ত্বকে বয়সের ছাপ, ব্ল্যাকহেডস, রিঙ্কেল প্রতিরোধ করে এবং ত্বককে ঠান্ডা রাখতেও সাহায্য করে।

২) একটা সমস্যা প্রায় আমাদের প্রত্যেকের মধ্যেই দেখা যায়। তা হল হজমের গোলমাল। সেক্ষেত্রে গরম জলে লেবুর রস মিশিয়ে খেলে হজমের সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। লেবুর রস রক্ত পরিশুদ্ধ করতে, কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করতে, শরীর থেকে টক্সিন দূর করতে, বদহজম কমাতে সাহায্য করে।

আরও পড়ুন নিজের বেলায় বুঢ্ঢা হোগা তেরা বাপ, আর বাড়ির ধন্যি মেয়েরা বিয়ের পর থেকে যাক অন্তরালে!

৩) লেবুর রস মুখের দুর্গন্ধ দূর করতে, মাড়ি থেকে রক্ত পড়া বন্ধ করতে এবং দাঁতের ব্যথা কমাতেও সাহায্য করে।

৪) যাঁদের উচ্চরক্তচাপ রয়েছে, তাঁদের রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ করতে সাহায্য করে লেবুর রস।

৫) ডিপ্রেশন এবং স্ট্রেস কমাতে সাহায্য করে।

আরও পড়ুন অফিসে হোক কিংবা বাড়িতে, জানুন বেশিক্ষণ বসে থাকলে আপনার কী ক্ষতি হবে

৬) নিয়মিত লেবুর রস মেশানো জল খেলে কফ, সর্দি থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। এছাড়া, যাঁদের হাঁপানির সমস্যা রয়েছে, তাঁদের শ্বাস-প্রশ্বাস সঠিকভাবে চালাতেও সাহায্য করে।

৭) লেবুর রসে কোনওরকম ক্যালোরি নেই। এবং এটিতে অ্যান্টিঅক্সিডেন্টস রয়েছে। যা আমাদের ত্বকে বয়সের ছাপ পড়তে দেয় না।

৮) গলার সংক্রমণ রোধ করে লেবুর রস। গলায় বেশি সংক্রমণ হলে, আদা এবং লেবুর রস মেশানো জল খেলে তা কমে যায়।-জিনিউজ






মন্তব্য চালু নেই