মেইন ম্যেনু

শাকিবের দাবি, ‘হুবহু নকল নয় রাজাবাবু’

কোরবানির ঈদে মুক্তি পেয়েছে বদিউল আলম খোকন পরিচালিত ‘রাজাবাবু’ ও দুই বাংলার যৌথ প্রযোজনার সিনেমা ‘আশিকী’। কিন্তু কোনোটিই জমিয়ে ব্যাবসা করতে পারছে না। কারণ হিসেবে অনেকে বলছেন দুই সিনেমায় ভারতীয় সিনেমার কাহিনীতে নির্মিত। যা বাংলাদেশের দর্শকদের আগেই দেখা। ‘আশিকী’ কপিরাইট নিয়ে নির্মিত হলেও ‘রাজাবাবু’তে তার বালাই নেই।

তাই নকলের অভিযোগে নির্মাতা ও অভিনেতা-অভিনেত্রীদের তুলোধুনো করছেন অনেকে। দর্শক সমাগম কম হলেও শাকিব খানের সিনেমা হিসেবে ‘রাজাবাবু’র টেবিল কালেকশন ভাল।

মুক্তির আগেই অভিযোগ উঠে তেলেগু ‘ধাম্মু’র কাহিনীতে নির্মিত হয়েছে ‘রাজাবাবু’। মুক্তির পর দেখা যায় দুই সিনেমার কাহিনী ও সংলাপ কাছাকাছি ধরনের। এমনকি মূল সিনেমার কিছু কাটপিস ব্যবহার করা হয়েছে ‘রাজাবাবু’তে। যেমন সিনেমার শুরুতেই শাকিব খানের পর্দায় আসার আগ মুহূর্তের গাড়ির দৃশ্যটি ‘ধাম্মু’ থেকে কেটে এনে বসানো হয়েছে।

নকলের বিষয়টি শাকিব খান প্রথম থেকেই জানেন। এ প্রসঙ্গে তিনি অন্য দেশের তুলনা টানেন। শাকিব  বলেন, “আমরাই শুধু অন্যদেশের সিনেমার অনুকরণে বানাই তা কিন্ত নয়। বলিউড, হলিউডে, অন্য দেশের ছবির অনুকরণে অনেক ছবিই নির্মাণ হচ্ছে। সেগুলো মানুষ দেখছেও। ‘রাজাবাবু’কে হুবহু নকল বললে ভুল বলা হবে। যারা ছবিটি দেখেছেন তারা বলতে পারবেন এটা হুবহু নকল কি-না! কিছু দৃশ্যের মিল থাকতে পারে। তবে বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটেই দর্শকের সামনে উপস্থাপিত হয়েছে ‘রাজাবাবু’।”

বয়াপতি শ্রিনু পরিচালিত ‘ধাম্মু’ সিনেমায় অভিনয় করেছেন এনটিআর, তৃষা কৃষনান, কার্তিকা নায়ারসহ আরও অনেকে। অন্যদিকে ‘রাজাবাবু’তে অভিনয় করেছেন শাকিব খান, অপু বিশ্বাস, ববি, ওমর সানি প্রমুখ।






মন্তব্য চালু নেই