মেইন ম্যেনু

শিক্ষকদের আন্দোলন, প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ

সরকারি ও স্বায়ত্বশাসিত বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের দাবি নিয়ে বেতন বৈষম্য নিরসন সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির সঙ্গে বৈঠক করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বৈঠকে তিনি শিক্ষকদের দাবির বিষয়টি নিয়ে কমিটির সদস্যদের সঙ্গে খোলামেলা আলোচনা করেছেন। সচিবালয়ে মন্ত্রিসভার বৈঠকে পর এ বৈঠক হয়। প্রায় এক ঘণ্টা ধরে ওই বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

বৈঠকে উপস্থিত এক মন্ত্রী নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, আলোচনা শুরু করেন বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ। তিনি বলেন, গেজেট জারির আগে বেতন বৈষম্য নিরসন সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটি শিক্ষকদের বিষয়ে একটি সুপারিশ দিয়েছিলেন। সেই সুপারিশ গেজেটে প্রতিফলিত হয়নি। তোফায়েলের বক্তব্যের প্রতি সমর্থন জানিয়ে মতামত দেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ।

তিনি বলেন, অস্টম বেতন স্কেলের গেজেট প্রকাশিত হওয়ার আগে শিক্ষকদের দাবির পরিপ্রেক্ষিতে মন্ত্রিসভা কমিটি যে সুপারিশ দিয়েছিল তা গেজেটে স্থান পায়নি।

বর্তমানে শিক্ষকরা আন্দোলন কর্মসূচিও ঘোষণা করেছেন। কালো ব্যাজ ধারণসহ আগামী ১১ জানুয়ারি থেকে লাগাতার ধর্মঘটেরও ডাক দিয়েছেন। বিদ্যমান পরিস্থিতির কারণে প্রধানমন্ত্রী এ বৈঠক করলেন।

নতুন পে-স্কেলে সিলেকশন গ্রেড ও টাইম স্কেল বাদ দেওয়ায় পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ও বিসিএস শিক্ষকদের বেতন আগের তুলনায় কয়েক ধাপ নিচে নেমে গেছে বলে অভিযোগ করে আসছেন শিক্ষকরা। বৈষম্যের কথা বলছেন, প্রকৌশলী, কৃষিবিদ, চিকিৎসক এবং বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিসের ২৬টি ক্যাডার (প্রশাসন ছাড়া) ও নন ক্যাডার কর্মকর্তারা।-ঢাকাটাইমস






মন্তব্য চালু নেই