মেইন ম্যেনু

শিক্ষকদের কর্মবিরতিতে নিষেধাজ্ঞা চেয়ে হাইকোর্টে রিট

স্বতন্ত্র বেতন স্কেলের দাবিতে বাংলাদেশের ৩৭টি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের সর্বাত্মক কর্মবিরতি কর্মসূচির ওপর নিষেধাজ্ঞা চেয়ে হাইকোর্টে একটি রিট আবেদন দায়ের করেছেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী অ্যাডভোকেট ইউনুস আলী আকন্দ।

একইসঙ্গে আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে শিক্ষকদের ক্লাসে ফিরে যাওয়ার আবেদনও জানানো হয়েছে রিটে। রোববার (১৭ জানুয়ারি) সকালে সুপ্রিম কোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় রিট আবেদনটি দায়ের করা হয়।

বিভিন্ন পত্রপত্রিকাসহ মিডিয়ায় শিক্ষকদের কর্মবিরতির প্রতিবেদন দেখে রিট আবেদনটি দায়ের করেনছেন বলে জানিয়েছেন অ্যাডভোকেট ইউনুস আলী আকন্দ।

রিটে মন্ত্রিপরিষদ সচিব, অর্থসচিব, বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি ফেডারেশনের সভাপতি-সেক্রেটারি, পুলিশের মহাপরিদর্শকসহ মোট ৯ জনকে বিবাদী করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি ফেডারেশনের ডাকে গত ১১ জানুয়ারি শুরু হওয়া এ কর্মবিরতি এখনও চলছে। বেশিরভাগ বিশ্ববিদ্যালয়ে ক্লাস-পরীক্ষা নেয়া হচ্ছে না। শিক্ষকরা প্রশাসনিক দায়িত্বও পালন করছেন না।

শিক্ষকদের এ আন্দোলনে মুখ থুবড়ে পড়েছে শিক্ষাকার্যক্রম। বেশিরভাগ শিক্ষার্থীই হতাশা প্রকাশ করেছেন। তারা বলছেন, সরকার ও শিক্ষকদের মধ্যে দ্রুত সমঝোতা হওয়া উচিত। না হলে তাদের শিক্ষাজীবন হুমকির মুখে পড়বে।

কর্মবিরতির শুরুর দিন চবির রাজনীতি বিজ্ঞান বিভাগের একজন অধ্যাপক বলেছিলেন, ‘সরকার চাইলে এটি সমাধান করতে পারত। কিন্তু সমাধান না করে সরকার উল্টো শিক্ষকদের ক্ষেপাচ্ছেন। অপরদিকে শিক্ষার্থীদের শিক্ষাকার্যক্রম বন্ধ রেখে আন্দোলন কোনোভাবেই কাম্য নয়। এ অবস্থা চলতে থাকলে শিক্ষাজীবন হুমকির মুখে পড়বে।’

তবে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি ফেডারেশনের নেতারা বলছেন, তাদের দাবি মেনে নিলেই এ কর্মসূচি প্রত্যাহার করা হবে।






মন্তব্য চালু নেই