মেইন ম্যেনু

শিগগিরই বিদেশিদের গ্রিন কার্ড দেবে সৌদি আরব

সৌদি আরবে বিদেশিদের থাকার সুবিধার্থে গৃহায়ণ মন্ত্রণালয় ঢেলে সাজানোর পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে। এ পরিকল্পনার আওতায় বিদেশিরা যাতে পাঁচ বছর থাকার সুযোগ পায়, সেজন্য ‘গ্রিন কার্ড’ ব্যবস্থা চালু করা হচ্ছে। দেশটির নীতি নির্ধারণী পরিষদ শুরা কাউন্সিল শিগগিরই গ্রিন কার্ড চালু করার জন্য আলোচনায় বসবেন।

এছাড়া সরকারি অন্যান্য সংস্থাও গ্রিন কার্ড চালুর বিষয়ে পর্যালোচনা করছে বলে পরিষদের কয়েকজন সদস্য দেশটির জাতীয় দৈনিক আরব নিউজকে জানিয়েছেন।

সোমবার সৌদি রাজপরিবারের উপযুবরাজ মোহাম্মাদ বিন সালমান আগামী পাঁচ বছরের মধ্যে রাজস্ব আয়ের উৎস হিসেবে মুসলিম ও আরব অঞ্চলের বাসিন্দাদের জন্য নতুন আবাসিক ব্যবস্থা (গ্রিন কার্ড/স্থায়ী বাসিন্দা) চালুর ঘোষণা দেন। এরপরই বুধবার শুরা কাউন্সিল শিগগিরই তা চালু করার কথা জানায়।

সৌদি আরবের ভিশন-২০৩০ বাস্তবায়ন বিশেষ কমিটির সদস্য ফাহাদ বিন জুমা আরব নিউজকে বলেন, নতুন অর্থনৈতিক পরিকল্পনা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনার জন্য কমিটির সদস্যদের সঙ্গে উপযুবরাজ একটি বিশেষ বৈঠকে বসবেন বলে প্রত্যাশা করা হচ্ছে। তিনি বলেন, ‘তার ঘোষণায় শুধুমাত্র নতুন ভিশনের শিরোনাম বলা হয়েছে। তবে আমরা এ বিষয়ে সরকারি প্রক্রিয়া সম্পর্কে জানার জন্য এখনো অপেক্ষা করছি’।

শুরা কাউন্সিলের আরেক সদস্য আওয়াদ আল আসসিরি বলেন, কমিটির পূর্ণাঙ্গ অধিবেশনে এ পরিকল্পনা সম্পর্কে আলোচনা করা হবে। একই ভাবে মন্ত্রিপরিষদে পাস হওয়ার আগে অন্যান্য বিভাগও এ বিষয়ে আলোচনা করবে।

অর্থনৈতিক বিশেষজ্ঞরা বলছেন, গ্রিন কার্ড ব্যবস্থার মাধ্যমে বছরে অন্তত ১০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার আয়ের প্রত্যাশা করছে সৌদি আরব। একই সঙ্গে এর মাধ্যমে কয়েক বিলিয়ন ডলারের বিদেশি বিনিয়োগও আকৃষ্ট করবে রিয়াদ।






মন্তব্য চালু নেই