মেইন ম্যেনু

শোক দিবসে চাঁদাবাজি ঠেকাতে শতাধিক গরু বিতরণ

১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবসকে কেন্দ্র করে চাঁদাবাজি বন্ধ এবং সুষ্ঠু ও সফলভাবে শোক দিবস পালনের জন্য শতাধিক গরু বিতরণ করেছে গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগ।

রোববার দুপুরে মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. জাহাঙ্গীর আলমের ছয়দানা এলাকার বাড়িতে অনুষ্ঠিত এক প্রস্তুতি সভায় এসব গরু বিতরণ করা হয়।

গত বছরের মতো এবারও মহানগরের ৫৭টি ওয়ার্ড এবং বিভিন্ন মাদরাসা, এতিমখানা ও দলীয় অঙ্গসংগঠনকে একটি করে ১০০টি গরু দেয়া হয়। তবে লোকসংখ্যা ও আয়তন বিবেচনায় কোনো কোনো ওয়ার্ড তিনটি পর্যন্ত গরু পেয়েছে।

মহানগর আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম এসব গরু সরবরাহ করেন। বিপুলসংখ্যক নেতাকর্মীর উপস্থিতিতে বিভিন্ন ওয়ার্ডের সভাপতি, সাধারণ সম্পাদকের কাছে গরু হস্তান্তর করা হয়।

গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম জানান, শোক দিবসকে ব্যবহার করে কেউ যেন চাঁদাবাজি করতে না পারে সে জন্য গরু বিতরণ করা হয়েছে। সংগঠনের যেকোনো পর্যায় থেকে চাঁদাবাজির খবর এলে কাউকে ছাড় দেয়া হবে না বলে হুঁশিয়ার করে দেন তিনি।

শোক দিবস উপলক্ষে রবিবার দুপুরে গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগের উদ্যোগে আলোচনা সভা ও মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট আজমত উল্লাহ খানের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলমের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন স্থানীয় সংসদ সদস্য ও যুব এবং ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় কমিটির সভাপতি জাহিদ আহসান রাসেল।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার কাজী মোজাম্মেল হক, গাজীপুর সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আতাউল্লাহ মন্ডল, শহর আওয়ামী লীগের সভাপতি ওয়াজ উদ্দিন মিয়া, অ্যাডভোকেট শফিকুল ইসলাম বাবুল, টঙ্গী থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি ফজলুল হক ও সাধারণ সম্পাদক রজব আলী।

এদিকে, সকালে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে জেলা পুলিশ লাইনে এক শোক সভা অনুষ্ঠিত হয়। জেলা পুলিশ প্রশাসনের উদ্যোগে সভায় পুলিশ সুপার মো. হারুন অর রশীদের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য দেন জেলা পরিষদের প্রশাসক আখতারুজ্জামান, সাংবাদিক সেলিম ওমারাও খান, জেলা প্রশাসক এস এম আলম প্রমুখ।






মন্তব্য চালু নেই