মেইন ম্যেনু

‘শ্রমিকেরা ন্যায্য অধিকার থেকে বঞ্চিত’

শ্রমিকের অবদানে বিশ্ব অর্থনীতি চাঙ্গা হলেও বাংলাদেশসহ বিশ্বের বিভিন্ন স্থানে শ্রমিকেরা তাদের ন্যায্য অধিকার থেকে বঞ্চিত বলে মনে করেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া।

মহান মে দিবস উপলক্ষে শনিবার গণমাধ্যমে দেওয়া এক বাণীতে তিনি এ কথা বলেন।

মহান মে দিবসকে ঐতিহাসিকভাবে একটি তাৎপর্যপূর্ণ দিন উল্লেখ করে দেশে বিদেশে কর্মরত বাংলাদেশিসহ বিশ্বের সব শ্রমজীবী মানুষকে আন্তরিক শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানান বিএনপি চেয়ারপারসন।

১৮৮৬ সালের মে মাসে শ্রমিকের ন্যায্য অধিকার আদায় করতে গিয়ে আমেরিকার শিকাগো শহরে ‘হে মার্কেটে’ জীবনদানকারী এবং এই আন্দোলনের জন্য ফাঁসিকাষ্ঠে আত্মদানকারী প্রতিবাদী শ্রমিকদের স্মৃতির প্রতিও গভীর শ্রদ্ধা জানান খালেদা জিয়া।

বাণীতে তিনি বলেন, ‘শ্রমজীবী মানুষের ঝরা ঘামেই বিশ্ব সভ্যতার বিকাশ এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির নতুন দিগন্ত উম্মোচিত হয়।

খালেদা বলেন, ‘শ্রমজীবী মানুষের অধিকার আদায় এবং তা রক্ষায় আমরা প্রতিশ্রুতি পালনে কখনোই পিছপা হইনি। শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান নিজেকে সব সময় একজন শ্রমিক হিসেবে পরিচয় দিতে গর্ব ও স্বাচ্ছন্দবোধ করতেন। শ্রমিকদের দুটো হাতকে তিনি উন্নয়নের চাবিকাঠি ভাবতেন। এদেশের শ্রমজীবী ও পরিশ্রমী মানুষের কল্যাণে তিনি যুগোপযোগী পদক্ষেপ গ্রহণ করেছিলেন।’

খেটে খাওয়া শ্রমজীবী মানুষের সার্বিক কল্যাণের লক্ষ্যে বিএনপির প্রচেষ্টা আগামীতেও অব্যাহত থাকবে বলে প্রতিশ্রুতি দেন বিএনপি নেত্রী।

অপর এক বাণীতে মহান মে দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশ ও বিশ্বের সব শ্রমজীবী মেহনতি মানুষকে আন্তরিক শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানান বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

তিনি বলেন, সব শ্রমজীবী ও কর্মজীবী মানুষের সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক অত্যন্ত নিবিড়। তাদের অধিকার ও মর্যাদা সুরক্ষায় আমরা সর্বদা সচেতন ও দৃঢ়প্রতিজ্ঞ। শ্রমিকদের স্বার্থ রক্ষায় বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল সব সময় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আসছে। আগামীতেও আমরা একইভাবে শ্রমজীবী ও কর্মজীবী মানুষের কল্যাণে নিরলস কাজ করে যাব।’






মন্তব্য চালু নেই