মেইন ম্যেনু

সংলাপ হতেই হবে: শেখ হাসিনাকে নাজমুল হুদা

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে উদ্দেশ্যে করে তৃণমূল বিএনপি নতুন কমিটির চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার নাজমুল হুদা বলেছেন, ‘দেশের বর্তমান রাজনৈতিক অস্থিরতা দূর করতে হলে যদি সংলাপের প্রয়োজন হয় তাহলে অবশ্যই সংলাপ করবেন কিন্তু সংলাপ হতে হবে যারা গণতন্ত্রে, নির্বাচনে বিশ্বাস করে তাদের সঙ্গে।’

আজ শুক্রবার জাতীয় প্রেসক্লাবে তৃণমূল বিএনপি আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে এ কথা বলেন তিনি।‘তৃণমূল বিএনপির কেন্দ্রীয় ও জেলা কমিটি ঘোষণা এবং স্যোশাল ডেমোক্রেটিক পার্টির তৃণমূল বিএনপিতে যোগদান’ শীর্ষক এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

নাজমুল হুদা বলেন, রাজনৈতিক অস্থিরতা দূর করতে হলে যদি সংলাপের প্রয়োজন তাহলে সংলাপে বসুন কিন্তু যারা নির্বাচন, গণতন্ত্র ও নির্বাচনের মাধ্যমে ক্ষমতা হস্তান্তরে বিশ্বাস করে না তাদের সঙ্গে সংলাপ নয়।

‌স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিমের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘আপনি বলেছিলেন- ৩১ দলীয় জোটের (বিএনএ) সঙ্গে কাজ করবে আওয়ামী লীগ। তাই আসুন, দেশের অস্থিরতা দূর করতে সংলাপে বসি। আমরা আপনাদের সকল ধরনের পরামর্শ দিয়ে সহযোগিতা করবো।’

এদিকে একই সময় তৃণমূল বিএনপির ৩১টি জেলায় আহ্বায়ক কমিটির নাম ঘোষণা করেন নাজমুল হুদা।

জেলাগুলো হলো : ঢাকা, ঝিনাইদহ, কুষ্টিয়া, মাগুরা, চুয়াডাঙ্গা, মেহেরপুর, পাবনা, নাটোর, টাঙ্গাইল, দিনাজপুর, চট্টগ্রাম, রাঙামাটি, জয়পুরহাট, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, মুন্সিগঞ্জ, রাজশাহী, নওগাঁ, নারায়ণগঞ্জ, কক্সবাজার, শেরপুর, জামালপুর, ময়মনসিংহ, পিরোজপুর, লক্ষ্মীপুর, সুনামগঞ্জ, বরিশাল, বরগুনা, পটুয়াখালী, ভোলা, ঠাকুরগাঁও ও নরসিংদী।

গত বছরের ১৫ জানুয়ারি ২৫টি রাজনৈতিক দলের সমন্বয়ে বাংলাদেশ জাতীয় জোট (বিএনএ) নামে নতুন একটি রাজনৈতিক জোটের আত্মপ্রকাশ ঘটে। পরবর্তীতে আরো ৬টি দল যোগ দিলে তা ৩১ দলীয় জোটে পরিণত হয়। সংখ্যাতত্ত্বের দিক থেকে বাংলাদেশে বর্তমানে এটিই সবচেয়ে বড় রাজনৈতিক জোট। এর বাইরে বিএনপির নেতৃত্বে ২০ দলীয় জোট, আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে ১৪ দলীয় জোট এবং এনপিপির নেতৃত্বে ১০ দলীয় জোট ন্যাশনালিস্ট ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (এনডিএফ) রয়েছে।






মন্তব্য চালু নেই