মেইন ম্যেনু

সফল হতে চান? এড়িয়ে চলুন এই কথাগুলো

প্রতিদিন তো কত রকমের কাজই করে চলেছেন আপনি। কিন্তু কেন? একবারের জন্যে ভাবুন তো। সফলতা। হ্যাঁ! এই চার অক্ষরের শব্দটার জন্যেই পুরোটা জীবন মানুষ বিভিন্ন জিনিসের পেছনে ধাওয়া করে বেড়ায়। ছুটে চলে পৃথিবীর এ প্রান্ত থেকে ও প্রান্তে। করে হাড়ভাঙ্গা পরিশ্রম। আর এসব কিছু করার পেছনে থাকে কেবল একটাই উদ্দেশ্য। সফল হওয়া। কিন্তু অনেক চেষ্টা সত্ত্বেও জীবনে অনেকে সফল হতে পারেননা। কেন? এই কয়েকটি ছোট্ট কথার জন্যে।

১. এটা আমার জন্যে নয় অনেকেই প্রায়ই এ কথাটা বলে থাকেন যে এই কাজটা তার জন্যে নয়। এই ধরনের মানুষগুলোর সারাটা জীবন কেটে যায় নিজের জন্যে সঠিক জায়গাটি খুঁজতেই। নিজেদের বর্তমান নিয়ে সন্তুষ্ট না থাকায় বর্তমানের ভিতে গড়ে ওঠা তাদের ভবিষ্যতও হয়ে ওঠে অনেকটা অনিশ্চিয়তাপূর্ণ। আর তাই সফল হতে পলে এড়িয়ে চলুন এই কথাটা।

২. আমি ছুটির দিনেও কাজ করি আদতে কাজ করাটা খুব ভালো হলেও অতিরিক্ত এই কাজ কিছু সময়ের পরে খুব বেশি ফলপ্রসূ হয় না। বরং জীবন সম্পর্কে আরো উদাসীন করে তোলে মানুষকে মানসিকভাবে। করে তোলে বিরক্তও। আর তাই অল্প সময় কাজ করলেও নিজের পুরোটা দেবার চেষ্টা করুন। বিল গেটসের কথাটা ভুলে যাবেননা। তিনি সবসময়ই কোম্পানীতে অলস লোকদের রাখতে চাইতেন। যাতে করে খুব দ্রুত কঠিন কাজটাও শেষ হয়ে যায়। করন অলস মানুষেরা বেশি কাজ করতে চায় না। অল্প সময়েই তারা খুব কঠিন কাজেরও কোন না কোন একটা সমাধান তৈরি করে ফেলে।

৩. আমি পারব না এই কথাটি দিনে কতবার বলেন আপনি? যদি সংখ্যাটা বড় হয় তাহলে এখনই আপনার থেমে যাওয়া উচিত। নিজেকে শোধরানো উচিত। কারন পারব না কথাটি বারবার বলা হলে আপনার নিজের প্রতি বিশ্বাস কমে যায়। এই ছোট্ট কথাটি আপনাকে মানসিকভাবেও এটাই মনে করিয়ে দেয় যে আপনি সত্যই পারবেননা। হয়তো এমনিতেই কথাটা বলেন আপনি। কিন্তু আপনার অবচেতন মন কথাটাকে একেবারের মতন গেঁথে নেয়। আর তাই এটি বলা থেকে বিরত থাকুন। পারব না না বলে বলুন এটা আমি কিভাবে করতে পারি?

৪. ভালো লাগছে না খুব ছোট্ট আর স্বাভাবিক একটা কথা। কিন্তু এই কথাটি আপনার দূর্বল মানসিকতাকে খারাপ সময়ে আরো ভেঙে দেবার জন্যে যথেষ্ট। আর তাই খারাপ লাগলেও নিজেকে বলুন সব ঠিক হয়ে যাবে। এতে করে আপনার মন নতুন উদ্যম পাবে।

৫. আমি কেয়ার করিনা শুধু আপনার নিজের জন্যেই নয়, নিজের সফলতার জন্যেই নয়, আপনার চারপাশের মানুষগুলোর সাথে গড়ে ওঠা সুন্দর সম্পর্কটির জন্যের ক্ষতিকর হতে পারে কথাটি। অহংকারী মনোভাব প্রকাশ করার জন্যে ব্যবহৃত এই কথাটি আপনার কাছের মানুষগুলোকে নিয়ে যাবে দূরে। আপনার সহযোগীদেরকে দূরে ঠেলে দেবে। আর সবার থেকে দূরে গিয়ে জীবনে সফলতার মুখ খুঁজে পাবেন একার চেষ্টায় এটা ভাবাটা খুব একটা বুদ্ধিমানের কাজ নয়।






মন্তব্য চালু নেই