মেইন ম্যেনু

আশংকাই সত্যি হলো

সরকারি মদদেই বিএনপি কার্যালয়ে হামলা

সরকারি মদদে ‘আসল বিএনপি’ নামধারী উচ্ছিষ্ট, পরজীবী ও টোকাইদের দিয়ে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে হামলা চালানো হয়েছে বলে অভিযোগ করেছে দলটি।

বিএনপি বলেছে, ‘৫ জানুয়ারির ভোটারবিহীন প্রহসনের নির্বাচন ও সদ্য অনুষ্ঠিত কারচুপির পৌর নির্বাচন থেকে জনগণের দৃষ্টি ভিন্ন দিকে প্রবাহিত করতেই সরকারি মদদে পুলিশি প্রটেকশনে এ হামলা চালানো হয়েছে। এ ঘটনা শুধু অনভিপ্রেতই নয়, সরকারি নীল নকশার অংশ।’

শনিবার সন্ধ্যায় নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে দলটির দপ্তরের দায়িত্বপ্রাপ্ত যুগ্ম-মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ এ কথা বলেন।

উল্লেখ্য, শনিবার বিকেল পৌনে ৪টার দিকে নয়াপল্টনস্থ বিএনপি কার্যালয় দখলে নিতে যায় আসল বিএনপি দাবিদার কামরুল হাসান নাসিমের লোকজন। কিন্তু বিএনপি কার্যালয়ে আগে থেকেই অবস্থান নেয়া ছাত্রদল-যুবদল নেতাকর্মীদের ধাওয়া খেয়ে পালিয়ে যায় তারা।

রিজভীরিজভী আহমেদ বলেন, ‘সরকারি মদদে এ হামলায় সাংবাদিকসহ ছাত্রদল ও যুবদলের ১৫ জন আহত হয়েছেন।’

সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন দলটির সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলুল হক মিলন, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবদুস সালাম আজাদ, ধর্মবিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মাসুদ আহমেদ তালুকদার, সহ-দপ্তর সম্পাদক আবদুল লতিফ জনি প্রমুখ।

‘আসল বিএনপি’র দখল ঠেকাতে পাহারা বসিয়েছে ছাত্রদল






মন্তব্য চালু নেই