মেইন ম্যেনু

সর্ববৃহৎ কবরস্থান: মৃত মানুষের আড্ডা হতে চলেছে ফেসবুক!

আর কয়েকটা বছর। তার পরেই ফেসবুক হয়ে উঠবে বিশ্বের সবচেয়ে বড় ‘কবরখানা’। এমনটাই বলছে সমীক্ষা।

২০৯৮ সালের মধ্যে ফেসবুকে জীবিত মানুষের তুলনায় মৃত মানুষের অ্যাকাউন্ট বেশি হয়ে যাবে। সেটাই বিশ্বের সবচেয়ে বড় ভার্চুয়াল ‘কবরখানা’ হবে বলে মনে করা হচ্ছে। এখন যেটা সবচেয়ে জনপ্রিয় সোশ্যাল মিডিয়া সেটাই হবে মৃত্যুপুরী।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ম্যাসাচুসেটস বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকেরা দাবি করেছেন, এই শতক শেষ হওয়ার আগেই জীবিত মানুষের চেয়ে ফেসবুকে মৃত মানুষের প্রোফাইল বেশি থাকবে। বর্তমানে ১৫০ কোটিরও বেশি ব্যবহারকারী রয়েছে ফেসবুকে। আর তার মধ্যে মৃত মানুষের অ্যাকাউন্ট সংখ্যা ইতিমধ্যেই অনেক। কারণ, ফেসবুক মৃত মানুষের প্রোফাইল নিজে থেকে সরিয়ে ফেলতে পারে না। আর সেই অ্যাকাউন্ট থেকেই যাচ্ছে।
প্রতি বছরই ফেসবুক ব্যবহারকারীদের মৃত্যুর সংখ্যা বাড়ছে। চলতি বছর ৯ লাখ ৭০ হাজার ফেসবুক ব্যবহারকারীর মৃত্যু ঘটবে বলে গবেষকরা মনে করছেন। ২০১০ সালে মৃতের সংখ্যা ছিল প্রায় ৩ লাখ ৮৬ হাজার ও ২০১২ সালে পাঁচ লাখ ৮০ হাজারের মতো।

ফেসবুক ব্যবহারকারীরা ‘লিগ্যাসি কনট্যাক্ট’ নামে একটি ফিচারের মাধ্যমে নিজের অ্যাকাউন্ট অন্যকে দিয়ে যেতে পারেন। যার মাধ্যমে কোনও ব্যক্তির মৃত্যুর পরেও তার ফেসবুক অ্যাকাউন্ট চলতে থাকবে।
সবচেয়ে বেশি মানুষ ফেসবুকে এসেছেন গত পাঁচ বছরে। এই প্রজন্মের মৃত্যুর পরেই ফেসবুক হয়ে উঠবে স্মৃতিচারণার জায়গা। এক ভার্চুয়াল কবরখানা।এবেলা






মন্তব্য চালু নেই