মেইন ম্যেনু

সাকার দাফন শেষে ছাত্রলীগের হামলা, সাংবাদিক গুলিবিদ্ধ

রাউজানের গহিরায় যুদ্ধাপরাধী সালাউদ্দিন কাদের (সাকা) চৌধুরীর দাফন শেষে ফেরার পথে ছাত্রলীগের হামলার শিকার হয়েছেন জানাজায় অংশগ্রহণকারীরা। এ সময় ছাত্রলীগের হামলায় এক সাংবাদিক গুলিবিদ্ধ এবং আহত হয়েছেন আরও তিন সাংবাদিক।

জানা যায়, রাউজানের গহিরা এলাকায় সাকার জানাজা শেষে ফেরার পথে রাউজান পৌরসভার কাউন্সিলর ও উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি জমির উদ্দিন পারভেজের নেতৃত্বে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা জানাজায় অংশগ্রহণকারী ও সাংবাদিকদের ওপর হামলা চালায়।

এ সময় হামলার ছবি তুলতে গেলে মোহনা টেলিভিশন চট্টগ্রাম ব্যুরোর রিপোর্টার রাজীব সেন প্রিন্স গুলিবিদ্ধ হয়। এ ছাড়া একুশে টিভির রিপোর্টারসহ আরও তিন সাংবাদিক আহত হয়েছেন।

মোহনা টেলিভিশনের চট্টগ্রাম ব্যুরো প্রধান আয়ান শর্মা জানান, পুলিশ সাকা চৌধুরীর বাড়িতে থাকলেও রাস্তায় ছিল না।

দাফনের আগে সাকার জানাজা নিয়ে শুরু হয় উত্তেজনা। তার বাড়ি থেকে আধা কিলোমিটার দূরে গহিরা কলেজ মাঠে জানাজা আয়োজন করতে চায় স্থানীয়রা। তবে প্রশাসনের বাধায় তা বন্ধ হয়ে যায়। পরে তার বাড়ির পাশেই জানাজার নামাজ পড়া হয়।

এর আগে যুদ্ধাপরাধী সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর মরদেহ প্রতিরোধে রাউজান উপজেলার প্রবেশপথসহ বিভিন্ন পয়েন্টে মধ্যরাত পর্যন্ত আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগের নেতাকর্মী ও মুক্তিযোদ্ধারা অবস্থান নিলেও পরে পুলিশের তৎপরতায় তারা সরে যায়।






মন্তব্য চালু নেই