মেইন ম্যেনু

সাতক্ষীরায় পুলিশের সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ দুই মাদক চোরাকারবারী গুলিবিদ্ধ

আবুল কাসেম, স্পেশাল করেসপনডেন্ট, সাতক্ষীরা: সাতক্ষীরা সদর ও দেবহাটায় দুটি পৃথক ঘটনায় পুলিশের গুলিতে দুই যুবক আহত হয়েছেন। তাদেরকে পুলিশ পাহারায় সাতক্ষীরা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
গুলিবিদ্ধ দুই যুবক হলেন সাতক্ষীরা পৌর এলাকার মধুমোল্লারডাঙ্গির বিশ্বজিত সরকার (২০) ও দেবহাটার বালিয়াডাঙ্গার মো. নুরুজ্জামান (২৪) । পুলিশ জানিয়েছে তারা দুজনেই মাদক চোরাকারবারী। সোমবার মধ্যরাতে পুলিশের সাথে পৃথক বন্দুকযুদ্ধে তারা গুলিবিদ্ধ হন।
জেলা পুলিশের বিশেষ শাখার উপ পরিদর্শক (এসআই) কামাল হোসেন জানান, ইটাগাছা পুলিশ ফাঁড়ির এসআই এমদাদ মাদক বেচাকেনার খবর পেয়ে এদল টহল পুলিশ নিয়ে গভীর রাতে সদর উপজেলার ইসলামপুরের বেজেরডাঙ্গায় গেলে সন্ত্রাসীরা তাদের লক্ষ্য করে বোমা মারে। জবাবে পুলিশ পাল্টা গুলি ছুড়লে একব্যক্তি আহত হন। আহত বিশ্বজিত সরকার একজন মাদক চোরাকারবারী। তার কাছ থেকে ১০০ পিস ইয়াবা ও কয়েক বোতল ফেনসিডিল জব্দ করা হয়েছে। এ সময় অন্যরা পালিয়ে যায়। বিশ্বজিত মধুমোল্লারডাঙ্গির নারায়ন সরকারের ছেলে।

কামাল হোসেন আরও জানান, একই রাতে দেবহাটা থানার এসআই নাজমুল আলম ও এসআই মাসুদুজ্জামান মাদক বেচাকেনার গোপন সংবাদ পেয়ে পুস্পকাটি গ্রামের ইটভাটার কাছে গেলে তাদের ওপর বোমা নিক্ষেপ করা হয়। পুলিশ পাল্টা গুলি ছুড়লে এক যুবক গুলিবিদ্ধ হন। গুলিবিদ্ধ নুরুজ্জামানও একজন মাদক চোরাকারবারী। তার কাছ থেকে ভারতীয় ফেনসিডিল ও মদ জব্দ করা হয়।
তিনি জানান, নুরুজ্জামানের বিরুদ্ধে দেবহাটা থানায় দুটি চোরাচালান মামলা রয়েছে। তিনি দেবহাটার বালিয়াডাঙ্গা গ্রামের আমিনুল মোল্লার ছেলে বলে জানান তিনি।
কামাল হোসেন বলেন, তারা দুজনেই সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে পুলিশ পাহারায় চিকিৎসাধীন রয়েছেন। তাদের বিরুদ্ধে পুলিশের ওপর হামলা ও মাদক চোরাচালানের পৃথক মামলা হয়েছে।






মন্তব্য চালু নেই