মেইন ম্যেনু

“সারাদেশে খুন ও গুমের ঘটনায় দেশবাসী আতঙ্কিত”

সারাদেশে আশঙ্কাজনক হারে খুন ও গুমের ঘটনায় গভীর উদ্বেগ ও ক্ষোভ প্রকাশ করে এর নিন্দা জানিয়েছেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আমীর মুফতী সৈয়দ মুহাম্মাদ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাই।

এক বিবৃতিতে তিনি বলেছেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক খুন, কারাগারের প্রধান নিরাপত্তা কর্মী খুন, সাধারণ মানুষ যত্রতত্র খুনের ঘটনা ঘটছে। সারাদেশে আশঙ্কাজনক হারে খুনের ঘটনায় দেশবাসী উদ্বিগ্ন। পীর সাহেব চরমোনাই বলেন, খুন ও গুম যেভাবে বৃদ্ধি পাচ্ছে তাতে দেশবাসী চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে।

দিন দিন সে আতঙ্ক সর্বত্র ছড়িয়ে পড়ছে। আইন-শৃঙ্খলার অবকাঠামো ভেঙ্গে পড়ছে। মানুষ ভয়ার্ত, আতঙ্কিত। এমতাবস্থায় একটি দেশ চলতে পারে না। এর আশু সমাধানে ব্যর্থ হলে সামাজিক অবকাঠামো বলতে কিছু থাকবে না। দেশের মানুষ চরম নিরাপত্তাহীনতায় জীবন কাটাবে।

পীর সাহেব চরমোনাই বলেন, একটি রাষ্ট্রের কাছে জনগণের মৌলিক চাহিদা নিরাপত্তার সাথে ব্যবস্থা বাণিজ্যসহ বসবাসের সুযোগ। কিন্তু সে চাহিদা থেকে জনগণ দিন দিন বঞ্চিত হচ্ছে। সরকার জনগণের চাহিদা ও দুঃখ-দুর্দশা লাঘবে চরমভাবে ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছে। তিনি সকল হত্যাকান্ডের সুবিচারের জন্য সরকারের কাছে দাবী জানিয়েছেন।

পীর সাহেব চরমোনাই আরও বলেন, ইসলাম জনগণের যাবতীয় চাহিদাপুরণে বদ্ধপরিকর। ইসলাম একটি পশু পাখির জীবনের নিরাপত্তা দিতেও বাধ্য। আজ দেশে ইসলাম না থাকায় মানুষের জীবনের কোন মূল্য নেই। দেশে এখন নূনের চেয়েও খুন সস্তা। ইসলাম দেশ ও জাতির কল্যাণে সর্বদা নিয়োজিত থাকে।

কাজেই শান্তি ও নিরাপত্তা পেতে হলে সকলকেই ইসলামের সুশীতল ছায়াতলে ফিরে আসতে হবে। কেননা ইসলাম ছাড়া মানবতার মুক্তি কখনো সম্ভব নয়।






মন্তব্য চালু নেই