মেইন ম্যেনু

‘সিরিয়ায় যুদ্ধাপরাধ করেছে রাশিয়া’

সিরিয়ার একটি হাসপাতালে ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় ৫০ জন নিহত হওয়ার ঘটনায় রাশিয়াকে দায়ী করেছে ফ্রান্স ও তুরস্ক। এ ঘটনাকে যুদ্ধাপরাধ বলে দাবি করেছে দেশ দুটি।

সোমবার তুরস্ক সীমান্তের কাছে সিরিয়ায় বিদ্রোহীদের নিয়ন্ত্রিত গ্রামের একটি হাসপাতালে এবং একটি স্কুলে ক্ষেপণাস্ত্র আঘাত হানে। আজাজ নামের এই জায়গাটিতে আলেপ্পো থেকে আসা সিরীয় শরণার্থীদের ভিড় বাড়ছে। এখানেই তুরস্কের বাহিনী একটি কুর্দি মিলিশিয়া গ্রুপের বিরুদ্ধে আক্রমণ চালাচ্ছে। হামলায় শিশু ও নার্সসহ ৫০ জন নিহত হয়েছে।

তুর্কি প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় এ হামলার জন্য রাশিয়াকে দায়ী করেছে। একই সঙ্গে সীমান্তবর্তী ওই শহরটি যদি কুর্দি মিলিশিয়ারা দখল করে নেয় তাহলে এর কঠোর জবাব দেওয়া হবে বলেও হুঁশিয়ারি দিয়েছে আঙ্কারা। ফরাসি পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ বিমান হামলাকে ‘পরিকল্পিত যুদ্ধাপরাধ’ বলে মন্তব্য করেছেন।

এদিকে, বেসামরিক স্থাপনায় হামলার কথা অস্বীকার করেছে রাশিয়া। দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী ভেরনিকা স্কভরতসোভা জানিয়েছেন, রাশিয়ার জঙ্গিবিমান ইসলামিক স্টেটের স্থাপনায় হামলা চালাচ্ছে। এসব জঙ্গিবিমান ইদলিবে বেসামরিক স্থাপনায় হামলা চালিয়েছে, তা বিশ্বাস করার কোনো কারণ নেই।






মন্তব্য চালু নেই