মেইন ম্যেনু

সিলেটে জঙ্গি হামলার আশঙ্কা অর্থমন্ত্রীর

সিলেটে জঙ্গি হামলা হতে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।

সোমবার বিকেলে সিলেটের বাদাঘাট এলাকায় নির্মাণাধীন সিলেট কেন্দ্রীয় কারাগার পরিদর্শনে এসে এমন আশঙ্কার কথা জানান তিনি। এর আগে গত শনিবার পুলিশের সিলেট রেঞ্জের ডিআইজি মিজানুর রহমানও বলেছিলেন, ‘সিলেটে জঙ্গিদের হামলার পরিকল্পনার নানা তথ্য পুলিশের কাছে আছে।’

মুহিত বলেন, ‘সিলেটে জঙ্গিদের তৎপরতা আছে। এজন্য সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে। জঙ্গি কর্মকাণ্ডের কোনো খবর পেলে তা পুলিশকে অবহিত করতে হবে।’

সিলেট কেন্দ্রীয় কারাগার বাদাঘাটে স্থানান্তর সম্পর্কে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘আগামী জুলাইয়ের মধ্যে সিলেট কেন্দ্রীয় কারাগার বাদাঘাটে স্থানান্তর করা হবে। আর পুরনো কারাগারের স্থানে পার্ক নির্মাণ করা হবে।’

কারাগারের জন্য বাদাঘাট থেকে সিলেট শহরতলীর তেমুখী পর্যন্ত সংযোগ সড়ক নির্মাণ করা হবে বলেও জানান অর্থমন্ত্রী।

মুহিত আরো বলেন, ‘অতীতে সিলেট অনেক ক্ষেত্রে পিছিয়ে ছিল। বর্তমানে সিলেটের অবস্থা অনেক ভালো হয়েছে।’

প্রধানমন্ত্রীর সিলেট সফরের বিষয়ে মন্ত্রী বলেন, ‘দীর্ঘদিন পর আনুষ্ঠানিক সফরে আসছেন প্রধানমন্ত্রী। তার সফরকে সফল করে তুলতে হবে।’

এ সময় আরো ছিলেন- সিলেট রেঞ্জের ডিআইজি মিজানুর রহমান, অর্থমন্ত্রীর ভাই ও জাতিসংঘে বাংলাদেশের সাবেক স্থায়ী প্রতিনিধি ড. একে মোমেন, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ, সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বদর উদ্দিন আহমদ কামরান, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান চৌধুরী, মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদ উদ্দিন, সাবেক সাংসদ সৈয়দা জেবুন্নেছা হক, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আশফাক আহমদ, মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শফিউল আলম নাদেল, সিলেট জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মাহি উদ্দিন সেলিম, সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি আজিজ আহমদ সেলিম, সিলেট প্রেসক্লাবের সভাপতি ইকরামুল কবীর ইকু, সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রশীদ রেনু, সিলেট প্রেসক্লাব ফাউন্ডেশনের সভাপতি আল আজাদ প্রমুখ।






মন্তব্য চালু নেই