মেইন ম্যেনু

সীমান্তে আরো ১০ হাজার সৈন্য প্রেরণ করেছে ভারত

পাক-ভারত যুদ্ধ উত্তেজনায় সীমান্তে আরো ১০ হাজার সৈন্য প্রেরণ করেছে ভারত। কাশ্মীরের নিয়ন্ত্রণ রেখা বরাবর ৭৭৮ কিলোমিটার সীমান্তে যুদ্ধ প্রস্তুতি উন্নত করতে দুই ভাগে এই সামরিক বাহিনী স্থাপন করা হয়। একই সঙ্গে সীমান্তবর্তী অবস্থানের কাছাকাছি এলাকায় জ্বালানি ও গোলাবারুদের মজুদও গড়ে তোলার খবর জানায় ভারতীয় মিডিয়া।

সীমান্ত এলাকায় ভারত নজিরবিহীন অস্ত্র মজুদ করছে অভিযোগ তুলে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফ হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করার পরই এ খবর দিলো ভারতীয় সংবাদপত্র। জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে দেয়া ভাষণে নওয়াজ বলেছেন, ভারতের এমন তৎপরতা বন্ধে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেবে পাকিস্তান।

ভারতের সংবাদপত্রে শুক্রবার প্রকাশিত খবরে বলা হয়, প্রয়োজনীয় রদবদল এবং সংশোধনের মাধ্যমে জরুরি যুদ্ধকালীন ভারতীয় পরিকল্পনাকেও নিখুঁত করা হচ্ছে। ভারতীয় বিমান বাহিনী বা আইএএফ’র সঙ্গে সমন্বয়ের ভিত্তিতে এ সব কাজ চলছে।

এদিকে যেকোনো ধরনের হামলা প্রতিহত করতে প্রস্তুত পাকিস্তান। বৃহস্পতিবার রাতে সামরিক মহড়াও দেয় দেশটির যুদ্ধবিমান। শুক্রবার পাকিস্তানের সেনাপ্রধান জেনারেল রাহিল শরীফ বলেছেন, ‘আমার দেশের সেনাবাহিনী যেকোনো বিনিময়ে দেশের প্রতি ইঞ্চি ভূখ- রক্ষা করবে। এর জন্য পূর্ণ প্রস্তুত আমরা।’

সম্প্রতি ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের সেনাঘাঁটিতে সন্ত্রাসী হামলায় ভারতীয় ১৮ সেনার প্রাণহানির ঘটনায় দু’দেশে এ উত্তেজনা শুরু হয়। সূত্র : দৈনিক পাকিস্তান উর্দূ



« (পূর্বের সংবাদ)



মন্তব্য চালু নেই