মেইন ম্যেনু

সেই শেতাঙ্গ নারীর কল্যাণে ডাস্টবিনের সেই শিশুটি এখন স্কুলেও যাচ্ছে

খুব বেশিদিন নয়, বছর খানিক আগের কথা, অভাবের তাড়নায় শিশুটিকে আস্তাকুঁড়ে ছুঁড়ে ফেলে দিয়েছিল তার পরিবার। সে সময় আবর্জনার স্তুপ থেকে শিশুটিকে যখন উদ্ধার করা হয়, তখন নিশ্চল চোখজোড়া।

ধুলা-ময়লা মাখা নগ্ন শীরের আপাদমস্তক চরম অপুষ্টির চিহ্ন। হাড্ডিসার সেই শরীর যে তখনও বেঁচে, বুকের খাঁচার ধুকপুকানি তা জানান দিচ্ছিল। আর কয়েক ঘণ্টা এভাবে পড়ে থাকলে, হয়তো মারাই যেত শিশুটি।

একবছর আগের শিশুটিকে উদ্ধারের সেই ছবি ইন্টারনেটে তোলপাড় সৃষ্টি করেছিল। ছবিতে দেখা যায়, এক শেতাঙ্গ নারী অপার স্নেহে শিশুটিকে পানি খাওয়াচ্ছেন। একহাতে মুখে ধরা মিনারেল ওয়াটারের বোতল, অন্য হাতে খাবারের প্যাকেট। দয়াবান এই শেতাঙ্গ নারীর কল্যাণে ডাস্টবিনে পড়ে থাকা সেদিনের সেই শিশুটি এখন স্কুলেও যাচ্ছে।






মন্তব্য চালু নেই