মেইন ম্যেনু

স্ট্রেইট করার জাদুকরী জেল ঘরে বানিয়ে ব্যবহার করুন

সোজা বা স্ট্রেইট চুল সব নারীর পছন্দ। ঝাঁকড়া কোকড়ানো চুলের যুগ এখন আর নেই। এখন কোকড়া চুল তো বটেই, সোজা চুলকেও আরো সোজা করার প্রবণতা এখন দেখা যায়। পার্লারে রিবন্ডিং বা ঘরে স্ট্রেইটনার দিয়ে অনেকে চুল সোজা করে থাকেন। কিন্তু এই স্ট্রেইটনার ব্যবহারে আছে নানা পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া। চুলের গোড়াকে দুর্বল করে দেয়, আগা ফাটে, চুলকে রুক্ষ করে তোলে ঘন ঘন স্ট্রেইটনার ব্যবহারে। অনেক সময় এই সকল সমস্যা ঠিক হয় না, চুল দীর্ঘ সময়ের জন্য নষ্ট হয়ে যায়। এই সকল সম্যসা থেকে মুক্তি পেতে চুলকে প্রাকৃতিকভাবে স্ট্রেইট বা সোজা করে ফেলুন। চলুন শিখে নিই চুল সোজা করার জেল তৈরির পদ্ধতি যা সম্পূর্ণ প্রাকৃতিক উপাদানে তৈরি। এই জেলটি চুলে নিয়মিত ব্যবহার করলে সৌন্দর্য না হারিয়েই চুল থাকবে একদম সোজা।

যা যা লাগবেঃ

১ কাপ নারকেলের দুধ
১টি লেবুর রস
২ টেবিলচামচ অলিভ অয়েল
৩ টেবিলচামচ কর্ণ স্টার্চ

যেভাবে জেল তৈরি করবেনঃ

প্রথমে লেবুর রসের সাথে কর্ণ স্টার্চ পাউডার ভাল করে মেশান। কর্ণ স্টার্চ পাউডার বার বার দিয়ে লেবুর রসের সাথে মেশাতে থাকুন।
এবার একটি পাত্রে নারকেলের দুধের সাথে অলিভ অয়েল মিশিয়ে নিন।
তারপর লেবুর রস এবং কর্ণ স্টার্চ পাউডারের মিশ্রণটি ঢেলে দিন। মাঝারি আঁচে চুলায় মিশ্রণটি জ্বাল দিন।
জ্বাল দেওয়ার সময় মিশ্রণটি বার বার নাড়তে থাকুন।
ঘন জেলের মত হয়ে এলে চুলা থেকে মিশ্রণটি নামিয়ে ফেলুন।
এবার একটি প্লাষ্টিকের বা কাঁচের বয়ামে জেলটি ঢেলে ফেলুন।
ঠাণ্ডা হবার পর চুলে এটি ব্যবহার করুন। নিয়মিত ব্যবহারে এটি আপনার চুলকে করবে একদম সোজা বা স্ট্রেইট করে দেবে যেমনটি আপনি চান। এই মিশ্রণ চুলে মেখে নিন ভালো করে। তারপর একটি গরম পানিতে ভেজানো তোয়ালে দিয়ে চুল পেঁচিয়ে রাখুন। ২ ঘণ্টা পর শ্যাম্পু করে কন্ডিশনার ব্যবহার করুন। আর দেখুন ম্যাজিক!.






মন্তব্য চালু নেই