মেইন ম্যেনু

স্ত্রী সম্পর্কে যে ৮টি কথা সবার সামনে বলবেন না

প্রত্যেক স্ত্রীই নিজের স্বামীর কাছে সেরা হতে চায়। কোনো স্ত্রীই অন্য কোনো নারীর সঙ্গে স্বামী তুলনা করুক এটা মেনে নিতে পারে না। তাই দাম্পত্য জীবনে সুখী থাকতে সবার সামনে এমন আটটি কথা বলা থেকে বিরত থাকুন।

১. ‘আপনার রান্না ওর রান্নার তুলনায় অনেক ভালো’ কোনো আত্মীয় বা পরিচিতের বাড়িতে গিয়ে কখনোই এই ধরনের তুলনা টানবেন না। এতে শুধু যে আপনার স্ত্রী কষ্ট পাবেন তা-ই নয়, তার কাছে আপনি অনেক ছোট হয়ে যাবেন।

২. দাম্পত্যে একটু আধটু ঝগড়া ঝাঁটি বরং সম্পর্ককে মজবুত করতেই সাহায্য করে। কিন্তু এটি আপনার ও আপনার স্ত্রীর একান্ত ব্যক্তিগত ব্যাপার। এটা সবার সামনে বলে স্ত্রীর ওপর দায় চাপাতে চান অনেকেই। এই ধরনের কাজ করা থেকে বিরত থাকুন।

৩. ‘আমার স্ত্রী যদি আপনার মতো দেখতে হতো’ এই ধরনের কথা বললে প্রথমত আপনার স্ত্রী ভীষণ কষ্ট পাবেন। আর যাকে বলছেন, তিনিও আপনাকে হীনম্মন্যতায় ভোগা অসুখী ব্যক্তি ভেবে করুণা ছাড়া আর কিছুই করবেন না।

৪. স্ত্রী হয়তো আগে গান গাইতেন, লেখালিখি বা নাচ করতেন। বিয়ের পর সাংসারিক ঝামেলায় হয়তো তার চর্চা নেই। কিন্তু তাই বলে সেটা সবার সামনে বলে বেরাবেন না। তিনি হয়ত সংসারের চাপেই ভালোলাগাগুলো বিসর্জন দিয়েছেন। তাই সবারসামনে তার প্রতিভাকে ব্যর্থতায় ঢেকে দেবেন না।

৫. ‘আমার স্ত্রী তো আপনার স্ত্রীর মতো সুন্দরী না’ আপনার স্ত্রীর সামনেই যদি অন্য কোনো মহিলাকে এ কথা বলার অভ্যাস থাকে, তবে এটি শুধু আপনার স্ত্রীকেই কষ্ট দেয় না, সবার সামনে আপনাকে কিছুটা চারিত্রিক ত্রুটিসম্পন্ন হিসেবেও প্রমাণ করে।

৬. আমার চেয়ে বাইরে বন্ধুদের সঙ্গে সময় কাটাতেই ভালোবাসে এর মানে আপনি যাই বলতে চান না কেন, সবার সামনে এর একটাই মানে দাঁড়ায়, আপনি আপনার স্ত্রীর সঙ্গে দাম্পত্যজীবনে সুখী নন। এ কথাটি ভুলেও বলবেন না।

৭. ওর চেয়ে ভালো মেয়েকে বিয়ে করতে পারতাম আমি-শুধু আপনার স্ত্রী-ই নয়, এমন কথায় হাসবে অনেকেই। এতে আপনার নিজের অসম্মানই বাড়বে। এসব কথা বলে যতটা না আপনার স্ত্রীকে কষ্ট দিচ্ছেন, তার চেয়ে বেশি আপনিই হাসির পাত্র হচ্ছেন।

৮. আপনার স্ত্রী যদি সত্যিই বেশি খরচ করে থাকেন, তা হলে তাকে বোঝান। খরচ কমাতে বাজেট করুন। কিন্তু বাইরের লোকের সামনে এ কথা বলবেন না।






মন্তব্য চালু নেই