মেইন ম্যেনু

স্বামীকে জোর করে যৌন সংসর্গ করতেও বাধ্য করেন স্ত্রী!

স্বামীর সঙ্গে চলছিল বিবাহবিচ্ছেদের মামলা। সেই মামলার জন্য প্রমাণ সংগ্রহ করতে স্বামীকে জোর করে যৌন সংসর্গে বাধ্য করেছিলেন স্ত্রী। অভিযোগ প্রমাণ হওয়ার পর স্বামীকে দাম্পত্য ধর্ষণের দায়ে স্ত্রী-কে সাজা দিল দক্ষিণ কোরিয়ার এক আদালত।

মহিলার বিরুদ্ধে অভিযোগ টানা ২৯ ঘণ্টা ধরে ওই মহিলা তাঁর স্বামীকে ঘরে বন্দি করে রাখেন। সেই সময় স্বামীকে জোর করে যৌন সংসর্গ করতেও বাধ্য করেন তিনি। আদালতে প্রমাণিত হয়ে যায় স্ত্রী-এর এই ঘটনা ছিল পরিকল্পনামাফিক। দাম্পত্য ধর্ষণ বিশ্বের ১০৪টি দেশে বিচারযোগ্য অপরাধ।

দক্ষিণ কোরিয়ায় দাম্পত্য ধর্ষণে কোনও মহিলার শাস্তি নজিরবিহীন। মনে করা হচ্ছে সেই মহিলার জরিমানা সহ জেল হবে। প্রসঙ্গত, দু বছর আগে ভারতের সুপ্রিম কোর্ট দাম্পত্য ধর্ষণকে আইনের চোখে অপরাধ হিসেবেই স্বীকৃতি দিয়েছিল।

সূত্র: জি নিউজ






মন্তব্য চালু নেই