মেইন ম্যেনু

স্বামীর চাইতে বয়সে বড় যে বলিউড নায়িকারা!

ভালোবাসা মানেনা ধর্ম-বর্ণ-বয়স। আর কেবল সাধারন মানুষ নয়, অনেক বিখ্যাত তারকাদের সাথেও অনেকবার ঘটেছে এমন ঘটনা। বিশেষ করে বলিউডের বেশ কিছু বিখ্যাত জুটির কথা এক্ষেত্রে না বললেই নয়। অনেক আলোচনা-সমালোচনার পাশ কাটিয়ে এই জুটিরা নিজেদের ভালোবাসাকে বিয়েতে পরিণতি দিয়েছেন।

আর এই জুটিগুলোর মধ্যে বেশ কিছু জুটি আছে যেখানে স্বামীর চাইতে স্ত্রীর বয়স বেশী। স্বভাবতই প্রথমে সবাই এই বিয়ে নিয়ে সমালোচনা করেছেন। আর তারকা হওয়ায় আরো অনেক বেশি সমালোচনার মুখে পড়তে হয়েছে এই জুটিদের নিজের বয়সের ভিন্নতার জন্যে। কিন্তু সেসব কথা একদমই কানেন তোলেননি তারা। সোজা চলে গেছেন বিয়ের মণ্ডপে। আর এমন কিছু সাহসী বলিউডি জুটির কথা নিচে দেওয়া হল।

১) অভিষেক বচ্চন ও ঐশ্বরিয়া রাই
বচ্চন পরিবারের ছেলে ৩৭ বছর বয়স্ক অভিষেক বচ্চন দুই বছরের ছোট ছিলেন বিশ্বসুন্দরী ঐশ্বরিয়া রাই এর থেকে। কেবল সেটাই নয়। ঐশ্বরিয়া ছিলেন মাঙ্গলিক। এছাড়া ঐশ্বরিয়ার অতীত প্রেমিকেরাও বেশ বড় বাঁধা হয়ে দাড়িয়েছিল এ বিয়েতে। কিন্তু সবকিছুকে পেছনে ফেলে এই দম্পতি বিয়ে করেন এবং বর্তমানে মেয়ে আরাধ্যাকে নিয়ে বেশ সুখেই সংসার করছেন।

২) অর্জুন রামপাল ও মেহের জেসিয়া
১৯৯৮ সালে অর্জুন রামপাল বিয়ে করেন তার থেকে ২ বছর বড় মেহের জেসিয়াকে। দুই সন্তানের জনক অর্জুন এখনো ঠিক আগের মতনই পাগলের মতন ভালোবাসেন মেহেরকে। বয়স বা অন্য কোনকিছুই পুরোন করে দিতে পারেনি তাদের বন্ধনকে।

৩) শীল্পা শেঠী ও রাজ কুন্দ্রা
শীল্পাকে প্রথম দেখাতেই ভালোবেসে ফেলেছিলন শীল্পার চাইতে মাত্র তিন মাসের ছোট রাজ কুন্দ্রা। আর সেই ভালোবাসার পরিণতি দিতেই ২০০৯ সালে শীল্পার সাথে বিয়ের পিঁড়িতে বসেন তিনি।

৪) ফারহান আখতার ও আধুনা ভাবানী
জাভেদ আখতারের ছেলে জিন্দেগী না মিলেগি দোবারাখ্যাত ফারহান আখতারের স্ত্রী আধুনা ভাবানীর সাথে ফারহানের পরিচয় হয় দিল চাহতা হ্যায় ছবির স্ক্রিপ্ট লেখার সময়। আধুনার চাইতে ৬ বছরের ছোট ফারহান ২০০০ সালে তার ভালোবাসাকে বিয়ের রুপ দেন। বর্তমানে দুই মেয়ে ও স্ত্রীকে নিয়ে বেশ সুখেই আছেন এ দম্পতি।

৫) আদিত্যো পাঞ্চোলি ও জারিনা ওয়াহাব
অনেকের অনেক আলোচনা-সমালোচনাকে উপেক্ষা করে আদিত্য পাঞ্চোলি বিয়ে করেন তার থেকে চয বছর বড় জারিনা ওয়াহাবকে। তারপর আর থামতে হয়নি তাদের। গত ২৬ বছর ধরে এ দম্পতি একসাথে আছেন।

৬) সীরিশ কুন্দার ও ফারাহ খান
বলিউডের এই জুটিটি একে অন্যের সাথে পরিচিত হন ম্যায় হু নার সেটে। সেখানে ফারাহ খান পরিচালিত ছবিটির ফিল্ম এডিটর হিসেবে কাজ করছিলেন সীরিশ। সেখানেই তাদের মধ্যে বন্ধুত্ব গড়ে ওঠে এবং একটা সময় সেটা গিয়ে দাড়ায় ভালোবাসায়। ৮ বছরের ছোট সীরিশকে বিয়ে করতে গিয়ে ছবির জগতে বেশ সমালোচনার মুখোমুখি হতে হয় ফারাহ খানকে।

কিন্তু সেসব সমস্যাকে অনেক পেছনে ফেলে এখন ফারাহ সীরিশের স্ত্রী ও পরিচালক- উভয় জায়গাতেই খুব ভালোভাবে নিজের পরিচয়কে তুলে ধরতে পেরেছেন। ফারাহ বলেন- যদি দ্বিতীয় জন্ম বলে কিছু থাকে আমি সেখানেও সীরিশকেই আমার স্বামী হিসেবে চাই।






মন্তব্য চালু নেই