মেইন ম্যেনু

হজযাত্রীদের কোনো ভোগান্তি হবে না : বিমানমন্ত্রী

চলমান হজ যাত্রায় মুসল্লীদের কোনো সমস্যা হবে না বলে জানিয়েছেন বিমান পরিবহন ও পর্যটনমন্ত্রী রাশেদ খান মেনন। প্রথমবারের মতো অনলাইন পদ্ধতিতে হজ কার্যক্রম পরিচালনার কারণে কিছু সমস্যা হলেও সামনের দিনে তা থাকবে না বলেও আশ্বাস দেন মন্ত্রী।

বৃহস্পতিবার সকালে ধর্মমন্ত্রীসহ দুই মন্ত্রণালয়ের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা এবং হজ সংশ্লিষ্ট সকল সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠান প্রধানদের সঙ্গে বৈঠক শেষে দুপুরে মন্ত্রণালয়ে সাংবাদিকদের এ তথ্য জানিয়েছেন মন্ত্রী।

রাশেদ খান মেনন বলেন, অনলাইনে সকল কার্যক্রমের শেষ পর্যায়ে সৌদি আরব থেকে একটি বারকোড নাম্বার আসে। এই কোডটি না আসলে টিকেট কাটা যায় না। প্রথমবার আমরা এই পদ্ধতিতে কাজ করছি। অনেক এজেন্সি এটা ঠিক মতো করতে পারেনি। ফলে হজযাত্রীদের জন্য নির্ধারিত ফ্লাইট বাতিল করতে হয়েছে।

এবার বাংলাদেশ থেকে এক লাখের কিছু বেশি মানুষ হজ্বে যেতে পারবেন। এর মধ্যে প্রায় ৭০ হাজার হজযাত্রী ইতোমধ্যে ভিসা পেয়েছেন। এ পর্যন্ত ১২৫টি ফ্লাইটে ৪১ হাজারের কিছু বেশি যাত্রী সৌদি আরবে চলে গেছেন।

বিমানমন্ত্রী বলেন, একজন যাত্রীর বিলম্ব হলে তার বিপরীতে অন্য একজন যাত্রীকে চাইলেই ফ্লাইটে উঠিয়ে দেয়া যায় না। এর জন্য বেশ কিছু নিয়ম কানুন আছে। এসব বিষয়ে বৈঠকে বিস্তারিত আলোচনা করে সিদান্ত নিয়েছি যে, আগামিকাল থেকে কোনো ফ্লাইট যাতে খালি না যায়।

পদ্ধতিগত জটিলতায় সৌদি আরবের পক্ষ থেকেও সমস্যা হচ্ছে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, আমরা একটা সিদ্ধান্ত জানালে তারা সেটার উত্তর দিতে অনেক সময় নেয়। একে তো নতুন অনলাইন পদ্ধতি। তারপরও সিদ্ধান্ত গ্রহণের জটিলতা থাকলে সমস্যা আরও বেড়ে যায়।

এ সময় বিমানমন্ত্রী হজ যাত্রীদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে বলেন, যেসব হাজীর ভিসা হয়ে গেছে তারা তাড়াতাড়ি টিকেট সংগ্রহ করে নিন।

সংবাদ ব্রিফিংয়ে বিমান মন্ত্রণালয়ের সচিবসহ উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।






মন্তব্য চালু নেই