মেইন ম্যেনু

হঠাৎ ৮৫ লাখ টাকার দু’খণ্ড হীরা পড়ে থাকতে দেখে চোখ উঠলো কপালে!

সাঁইবাবার আশ্রম। দামি জিনিসের দান নতুন কিছু নয়। কিন্তু এই পরিমাণ দান কখনো আসেনি। হঠাৎ দানবাক্সে ৮৫ লাখ টাকার হীরা দেখে চোখ উঠলো কপালে!

সাধারণত খুব দামি জিনিস হলে সেটা সরাসরি আশ্রম কর্তৃপক্ষের হাতে তুলে দেয়া হয়। তবে ডোনেশন বক্সে এত দামি জিনিস বোধহয় এই প্রথম।

মঙ্গলবার এই বাক্সেই মিলল ৮৫ লাখ টাকার একটি হীরা। প্যাকেটে মোড়ানো অবস্থায় বাক্সে ফেলে দেয়া হয়েছিল হীরাটি। এমন দামি জিনিস এভাবে পড়ে থাকতে দেখে আশ্রম কর্তৃপক্ষের চোখ কপালে।

এই হীরার মূল্য জানতে মুম্বাইয়ের স্বর্ণকারদের খবর দেয়া হয়। মূল্য নির্ধারণের জন্য একটি প্যানেল গঠন করা হয়। নরেশ মেহতা, প্রদীপ জাভেরি ও ভারত সোনি ছিলেন সেই প্যানেলে।

বুধবার সেই রিপোর্ট দেয়া হয় আশ্রম কর্তৃপক্ষের হাতে। নরেশ মেহতা জানিয়েছেন, তারা প্রথমটায় মনে করেছিলেন হীরাটির দাম খুব বেশি হবে না।

কিন্তু পরে দেখেন সেটি অত্যন্ত মূল্যবান। মূল্য দেখে তারা অবাক। একটি হীরা ৬.৬৭ ক্যারাটের। আর অপরটি ২.৫০ ক্যারাটের। সব মিলিয়ে দুটির মূল্য ৮৫ লাখ টাকা।

বর্তমানে ট্রাস্টের মাথায় রয়েছে মুম্বাই হাইকোর্টের একটি কমিটি। তারাই সিদ্ধান্ত নেবেন, এই হীরা নিয়ে কি করা হবে। সাঁইবাবার আশ্রমের ডোনেশন বক্স প্রত্যেকদিন সকালে খালি করা হয়।






মন্তব্য চালু নেই