মেইন ম্যেনু

হাতের ত্বক সতেজ ও সুন্দর রাখার উপায়

প্রচুর সময় এবং অর্থ খরচ করে আমরা মুখের ত্বক ভীষণ যত্নে রাখি। হাতের ত্বক নিয়ে কয়জন চিন্তা করি? অথচ হাতের ত্বকের ওপর দিয়েই যায় সবচাইতে বেশি ঝড়ঝাপটা, বয়সের ছাপটাও সবার আগতে হাতের ত্বকেই প্রকট হয়ে ওঠে। তাই একটু হলেও যত্নে রাখুন হাত। অ্যান্টি-এজিং ক্রিম ব্যবহার করি অনেকেই। চুলে ধূসরতার ছাপ পড়লে কালার করাতে দেরি হয় না। একইভাবে হাতে দেখা যাওয়া বলিরেখা এবং নিষ্প্রভতার জন্যও কিছু যত্ন নেওয়া জরুরী। জেনে রাখুন হাতের ত্বকের তারুণ্য ধরে রাখতে কী কী করা উচিত।

১। গ্লাভস পরুন প্রতিদিন বাসন-কোসন ধোয়াধুয়ি, রান্না এবং কাপড় ধোয়ার কাজগুলো হাতের ত্বক একেবারে রুক্ষ করে দেয়। এমনকি হাতের ত্বক ফেতে ফেটেও যেতে পারে। এমনকি একজিমাও হতে পারে এ থেকে। এ কারণে যখন সম্ভব, পরুন ডিশওয়াশিং গ্লাভস। এ ছাড়াও হাতে ময়লা লাগবে বা সাবান অতিরিক্ত ব্যবহার হবে এমন সব পরিস্থিতিতে গ্লাভস পরে কাজ করার চেষ্টা করুন।

২। ময়েশ্চারাইজ করতে ভুলবেন না শরীরের অন্য যেকোনো এলাকার ত্বকের থেকে হাতের ত্বক থেকে খুব দ্রুত আর্দ্রতা চলে যায়। এ কারণে হাতের ত্বকে ময়েশ্চারাইজার প্রয়োগ করা জরুরী। হ্যান্ড ক্রিম এবং লোশন ব্যবহার করুন এর জন্য। শিয়া বাটার, অলিভ অয়েল, ভিটামিন ই, ম্যাকাডেমিয়া নাট অয়েল এসব উপাদান আছে এমন ক্রিম হাতের ত্বকে তারুণ্য ধরে রাখবে। শাওয়ার বা হাত ধোয়ার পর পরই এসব ক্রিম মেখে নিন। এছাড়াও মুখে অ্যান্টিএজিং ক্রিম দেবার সময়ে হাতেও একটু মেখে নিতে দোষ নেই। আই ক্রিম ম্যাসাজ করলেও অনেকটা উপকার পাবেন।

৩। মানানসই নেইলপলিশ ব্যবহার করুন খুব রঙচঙে নেইল পলিশ ব্যবহার করতে পছন্দ করেন কেউ কেউ। কিন্তু এগুলো আসলে হাতটাকে বেশি জবরজং এবং বয়স্ক করে তোলে। বরং ব্যবহার করুন এমন একটি শেড যা আপনার হাতের ত্বকের খুঁতগুলোকে চোখে পড়তে দেবে না। অতিরিক্ত ঝলমলে গ্লিটার পলিশ, অতিরিক্ত লম্বা নখ অথবা চৌকো করে নখ কাটলেও হাত বেশি বয়স্ক মনে হয়। এমন রঙ ব্যবহার করুন যাতে হাতের ত্বক বেশি বিবর্ণ মনে না হয়।

৪। সানস্ক্রিন ব্যবহার করুন রোদে ত্বকের বেশি ক্ষতি হয়। ত্বকের রঙ গাড় হয়ে যাবার পাশাপাশি দেখা দিতে পারে বাদামি ছোপ। আপনার বয়স যতো কমই হোক না কেন, মুখের পাশাপাশি হাতেও সানস্ক্রিন লোশন দেওয়ার অভ্যাস করুন। এরপর যদি হাত ধোয়া হয় তবে আবারও একবার সানস্ক্রিন লাগিয়ে নিন। হাতের তালুতে না দিয়ে শুধু হাতের উল্টোপিঠে লাগাবেন।

৫। এক্সফলিয়েট করুন মৃত ত্বক কোষ সরিয়ে ফেলুন এক্সফলিয়েট করে। তাহলে ত্বকে মসৃণতা এবং তারুণ্য ফিরে আসবে। মুখের মতো হাতেও কোমল প্রকৃতির এক্সফলিয়েটর ব্যবহার করুন।

৬। মেকআপে ঢাকুন যাদের হাতের ত্বকে ইতোমধ্যে বয়সের ছাপ পড়ছে তারা মেকআপ দিয়ে ঢাকতে পারেন এসব সমস্যা। এর জন্য অল্প করে হ্যান্ড ক্রিম নিন হাতের তালুতে। এর মাঝে এক বিন্দু লিকুইড ফাউন্ডেশন নিয়ে মিশিয়ে নিন। এরপর এটা হাতের ত্বকে ম্যাসাজ করে নিন।

৭। ম্যাসাজ ঘরে বসে অল্প কিছু সময় ম্যাসাজ করলে যে কতোটা উপকার হবে আপনি ধারণাও করতে পারবেন না। কয়েক ফোঁটা অলিভ অয়েল হাতের তালুতে নিয়ে ম্যাসাজ করুন প্রতিদিন।






মন্তব্য চালু নেই