মেইন ম্যেনু

হামলার শঙ্কায় প্রকাশ্যে রামদা নিয়ে ছাত্রলীগের মিছিল!

মাজার জিয়ারত শেষে সিলেটের রাস্তায় ধারালো রামদা নিয়ে মিছিল করেছে সিলেট জেলা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা।

জেলা ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি করার পর স্থানীয় শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানানো এবং হজরত শাহজালাল (রহ.)-এর মাজার জিয়ারত শেষে মিছিল বের করে ছাত্রলীগ। এসময় নেতাকর্মীদের অনেকের হাতে ধরালো অস্ত্র দেখা যায়।

জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি শাহরিয়ার আলম সামাদকে এ ব্যাপারে প্রশ্ন করা হলে তিনি রামদা নিয়ে মিছিল করার কথা স্বীকার করেন।তবে তিনি বলেন, আমাদের কাছে খবর ছিল যে বিদ্রোহী একটি গ্রুপ আমাদের ওপর হামলা করতে পারে।

আর এ কারনেই হয়তো কিছু জুনিয়র ছেলে দেশি অস্ত্র নিয়ে মিছিলে অংশ নিতে পারে। ছাত্রলীগের এই নেতা বলেন, হামলার শঙ্কার কথা আমরা পুলিশকে জানিয়েছিলাম এবং তাদের সহযোগিতা চেয়েছিলাম কিন্তু পুলিশ আমাদেরকে মিছিল না করার অনুরোধ করেই দায়িত্ব শেষ করে।পুলিশ আমাদেরকে সহযোগিতা করেনি।তবে ভবিষ্যতে এমনটা আর হবে না বলে তিনি সবাইকে আশ্বস্ত করেন।

ছাত্রলীগের মিছিলে ধারালো রামদা কেন-এমন প্রশ্নের জবাবে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক জাকির হোসাইন বলেছেন, মিছিল হয়েছে তা জানি, কিন্তু রামদা নিয়ে মিছিল হয়ে তা জানা নেই। তবে যদি এমন হয়ে থাকে তাহলে খোঁজ খবর নিয়ে দায়ী ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

সিলেট জেলা ছাত্রলীগের কমিটি পূর্ণাঙ্গ হওয়ায় দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতারা হজরত এবং শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন। পরে জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের নেতৃত্বে দুটি পৃথক মিছিল বের করা হয়। মিছিলে উপস্থিত নেতা-কর্মীদের হাতে ধারালো রাম দা দেখা যায়।

সূত্রে জানা যায়, গত শুক্রবার দিবাগত রাতে সিলেট জেলা ছাত্রলীগের কমিটি পূর্ণাঙ্গ হয়।কমিটি পূর্ণাঙ্গ হওয়ায় আজ মঙ্গলবার দুপুরে জেলা ছাত্রলীগের দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতাদের একাংশ এবং তাঁদের অনুসারীরা হজরত শাহজালাল (রহ.)-এর মাজার জিয়ারত করেন এবং শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান।

জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি শাহরিয়ার আলম সামাদের নেতৃত্বে একটি মিছিল নগরীর বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে তালতলায় গিয়ে শেষ হয়।এ সময় মিছিলে অংশগ্রহণকারী নেতা-কর্মীদের হাতে ধারালো রাম দা দেখা যায়।

একই সময়ে জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এম.রায়হান চৌধুরীর নেতৃত্বে আরেকটি মিছিল নগরীর টিলাগড়ে গিয়ে শেষ হয়। ওই মিছিলে নেতা-কর্মীদের হাতে ধারালো রাম দা ছিল।






মন্তব্য চালু নেই