মেইন ম্যেনু

হামাস রমণীদের প্রেমে ইসরায়েলের সেনারা

ফিলিস্তিনি গেরিলা দল হামাস সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে সুন্দরী রমণীদের দিয়ে অনলাইন চ্যাটিংয়ের মাধ্যমে ইসরায়েলি সেনাদেরকে প্রেমের ফাঁদে ফেলে তাদের মোবাইল ফোন, ক্যামেরা এবং মাইক্রেফোন হ্যাক করে সেখান থেকে তথ্য জানার চেষ্টা করছে। আর ইসরায়েলি সেনারাও খুব সহজেই এই সব সুন্দরী রমণীদের প্রেমের ফাঁদে ধরা দিচ্ছে। তবে ইসরায়েলের সেনাবাহিনী বুধবার হামাসের এই প্রতারণা ধরে ফলার কথা জানিয়েছে। খবর বিবিসির।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক ইসরায়েলি কর্মকর্তা জানান, “হামাসের সদস্যরা অনলাইনে ইসরায়েলের সেনাদেরকে খুঁজে বের করে। তারপর ভুয়া পরিচয় দিয়ে বন্ধুত্বের প্রস্তাব দেয়। আর এই ফাঁদে পা দিয়ে বহু সেনা এমন কিছু অ্যাপ্লিকেশন ডাউনলোড করতে উদ্বুদ্ধ করা হয়। যার ফলে এসব সেনাদের ফোন, ক্যামেরা এবং মাইক্রোফোন হামাসের কব্জায় চলে গেছে। ”

তিনি বলেন, “ইসরায়েলের এইসব সেনাদের বেশির ভাগই নিম্ন পদমর্যাদার। আর এই জালিয়াতিচক্র ইসরায়েলি সেনাদের মহড়া, শক্তিমত্তা এবং অস্ত্রশস্ত্র সম্পর্কিত তথ্য জানতে চায়। বিশেষ করে হামাস-নিয়ন্ত্রিত গাজা উপত্যকার চারপাশের ইসরায়েলি সেনাদের তথ্যের প্রতি তাদের উতসাহ বেশি লক্ষ্য করা গেছে। ”

কর্মকর্তা আরও জানান, “সত্যিকারের তরুণীদের ছবিই হামাস সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে ব্যবহার করছে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে থাকা সেই তরুণীদের ছবি ও ব্যক্তিগত তথ্য চুরি করে তারা এ কাজটি করছে। ”

এ সময় হামাস যোদ্ধাদের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যবহার করা কিছু ছবি ও ইসরায়েলি সেনাদের কাছে পাঠানো ভুয়া প্রেমের বার্তাও বুধবার সাংবাদিকদের দেখিয়েছেন তিনি।






মন্তব্য চালু নেই