মেইন ম্যেনু

হিল সম্পর্কে ৩ টি জিনিস যা প্রত্যেক নারীর জানা দরকার

হাই হিল সম্পর্কে সকল নারীদের জন্য কিছু টিপস দিলেন সেলিব্রেটি স্টাইলিস্ট মিকিলা আরল্যাঙ্গার। তিনি বলেন, ‘আমার কয়েকজন ক্লায়েন্টসহ কিছু মানুষ আছেন যারা হাই হিল পরে ঘণ্টার পর ঘণ্টা হাঁটতে পারে। তবে আমি এভাবে হাঁটতে পারি না। আমি এটা স্বীকারও করি। তবে আমি মনে করি প্রত্যেক নারী হাই হিল পরে হাঁটতে পারে। এর জন্য তাকে হিল সম্পর্কে ৩ টি প্রধান বিষয় জানতে হবে। তা হল গঠন, উপকরণ এবং ব্র্যান্ড।’

শপিং করার সময় একটি ব্যাপার সবার আগে যে ব্যাপারটি খেয়াল করতে হবে তা হল যখন আপনি শপিং করবেন, তখন আপনি আবশ্যই আরামদায়ক স্টাইল বেছে নিবেন। চলুন দেখে নেওয়া যাক সেই ৩টি বিষয় সম্পর্কে।

গঠনঃ গঠনের ক্ষেত্রে পিচ হচ্ছে প্রধান বিষয় যা সকলকে দেখে কিনতে হবে। পিচ বলতে বুঝায় হিলের উচ্চতার সাথে সোলের উচ্চতার পার্থক্যকে। এই পিচ যত কম হবে তত গোড়ালির জন্য ভাল। শুয়ের ‘ভ্যাম্প’ হল আরেকটি যায়গা যেখানে খেয়াল করা জরুরি। ভ্যাম্প হল শু এর উপরের অংশ যেখানে পায়ের গোড়ালি থাকে। ভ্যাম্প যত উঁচু হবে পায়ে তত সাপোর্ট পাওয়া যাবে। এছাড়া আপনার পায়ের আকৃতিও বুঝতে হবে। যেমন, পা যদি বেশ চওড়া হয় তাহলে পাম্পস না পরে স্যান্ডেল পরা ভাল।

উপকরণঃ আমি এটাও লক্ষ্য করেছি যে, আপনার জুতা কতটা আরামদায়ক হবে তা শুয়ের উপকরণের উপর নির্ভর করে। যেমন, প্যাটেক্স লেদার কিংবা পার্সপেক্সের তৈরি জুতায় পা কেটে যাওয়ার সম্ভাবনা আছে। এজন্য ন্যাচারাল কাপড় বেছে নিলে ভাল হয়। যেমন, সিউড কিংবা সাটিন কাপড়ের জুতা বেশ আরামদায়ক।

ব্র্যান্ডঃ এক্ষেত্রে যে ব্যাপারটি খেয়াল করতে হবে তা হল আপনি নিজে যে স্টাইল পছন্দ করেন সেই রকম জুতা কোন কোন ব্র্যান্ড তৈরি করে। তারা যখন কোন প্রোডাক্ট তৈরি করে তখন তাদের সম্ভবত কোন ভুল হয় না। কিন্তু আপনি যখন সেটা কিনবেন সেটা আপনার পায়ে যেন ভালো মানায়। এক্ষেত্রে বিভিন্ন স্টাইল ও ডিজাইনারদের মতামত অনুসরণ করতে পারেন।






মন্তব্য চালু নেই