মেইন ম্যেনু

হেডফোন যখন গহনা

যন্ত্রপাতির সঙ্গে মানুষের মেলবন্ধনটা গভীর। তবে যন্ত্রপাতি আর যাই হোক গহনা হতে পারে না। কারণ যন্ত্র মানেই তো ধাতব বস্তু। কিন্তু পৃথিবীর চিরচেনা এই ধাতব যন্ত্রের রূপ বদলে দিতে এসেছে নতুন ধারণা। যেখানে হেডফোন হয়ে উঠলো গহনা।

তারা গান শোনার যন্ত্র হেডফোনকে পরিবর্তন করে তুলেছেন নতুন ও আকর্ষণীয় একটি গহনায়। হ্যাঁ পাঠক, এখন থেকে হেডফোন পাওয়া যাবে নতুন রুপে।

ইটালির বিখ্যাত ফ্যাশন হাউস ‘ডোলসে অ্যান্ড গাবানা’ অভিনব কায়দায় হেডফোনকে গহনা করে তুলল। অপূর্ব মুকুটের মডেলে হেডফোন ডিজাইন করলেন তাঁরা৷ আর সে হেডফোন মুকুট উঠল মার্জার সরণিতে মডেলদের মাথায়৷

১৯৮৫ সালে মডেল ডোলসে ও গাবানা একই নামের এই ফ্যাশন হাউসটি প্রতিষ্ঠা করেন৷ সম্প্রতি তাঁদের এক ফ্যাশন শো অনুষ্ঠিত হয়৷ আর সেখানে তারা এক ইলেকট্রনিক্স কোম্পানির সঙ্গে গাঁটছড়া বেঁধে তৈরী করেন নতুন এই হেডফোন।

তারা গানের মতোই গান শোনাকেও সুন্দর করে তুলতে চেয়েছিলেন ৷ তাঁদের ডিজাইনের ছোঁয়া পেয়েই যন্ত্রও হয়ে উঠেছে গহনা৷

‘শো’ টির থিম ছিল মূলত মা খালাদের পুরাতন ফ্যাশনকেই নতুন রুপে প্রদর্শণ করা।

আপাতত লাল, সবুজ আর সোনালি রঙে তৈরি করা হয়েছে এ গহনা৷ তবে ফ্যাশনপ্রেমী থেকে সঙ্গীতপ্রেমীদের ভালো লাগলে আরও নানা কম্বিনেশনে তৈরি করা হবে বলে জানানো হয়েছে সংস্থার তরফ থেকে৷

আমরা সাধারণত রাস্তায় বা শপিংমলে হরহামেশাই দেখি কানে হেডফোন লাগিয়ে হেঁটে চলছে অনেকে। তাদের কথা মাথায় রেখেই এই নতুন ও অভিনব চিন্তা।






মন্তব্য চালু নেই