মেইন ম্যেনু

১০০ টাকার জন্য মাধবদীতে যুবককে কুপিয়ে হত্যা

নরসিংদী জেলার মাধবদিতে মাত্র ১০০ পাওনা আদায় নিয়ে যুবককে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। নিহতের বড় ভাই আব্দুল বাছেদের কাছে দোকান বাকীর এ টাকা আদায়ে ছোট ভাই খোরশেদের মোবাইল ফোন আটকায় পাড়ার মুদি দোকানি নাসির। এ নিয়ে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে দোকানি নাসিরের লোকজন হামলে পড়ে খোরশেদের উপর। তারা খোরশেদকে এলোপাতাড়ি কোপাতে শুরু করে। এতে খোরশেদ গুরুতর আহত হয়। প্রতিবেশিরা উদ্ধার করে গুরুতর আহত খোরশেদকে ঢাকা মেডিকেল হাসপাতালে নেযার পথে সে মারা যায়।

শুক্রবার (১৫ জুলাই) সন্ধ্যায় মাধবদীর নওপাড়া (মঠবাড়ি) মহল্লায় এ ঘটনা ঘটে। প্রতিপক্ষের হামলায় আহত হয়েছে আরো ৪ ব্যক্তি। নিহত যুবক খোরশেদ (২৮) একই পাড়ার শামসুল হকের ছেলে।নিহত খোরশেদ স্থানীয় একটি টেক্সটাইল মিলে কাজ করত।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, নিহতের বড় ভাই আব্দুল বাছেদ একই পাড়ার নাসিরের দোকান থেকে কিছুদিন আগে ১০০ টাকার সদাই বাকী নেয়। এ টাকা সে দিচ্ছিল না। ঘটনার দিন বিকেলে খোরশেদ ওই দোকানে সদাই কিনতে গেলে বড় ভাই বাছেদের বাকীর টাকা উদ্ধারে দোকানি নাসির তার মোবাইল আটক করে।

খবর পেয়ে নিহত খোরশেদের চাচা ও তার প্রতিবেশীরা বিষয়টি মিমাংসা করতে গেলে উভয় পক্ষের মধ্যে কথা কাটাকাটি শুরু হয়। এক পর্যায়ে দু’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ শুরু বেধে যায়। এসময় নাসিরের লোকজন দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে খোরশেদ ও তার পক্ষের লোকজনের উপর হামলা চালায়। হামলাকারীদের এলোপাতাড়ি কোপে গুরুতর আহত হয় ৫ জন । আহতদের স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

মাধবদী থানার ওসি (ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা) মুহাম্মদ ইলিয়াছ ঘটনাটির সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য নরসিংদী সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। এব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে।






মন্তব্য চালু নেই