মেইন ম্যেনু

১১০ বছর বয়সে বাবা হয়ে রেকর্ড করলেন বৃদ্ধ!

১১০ বছর বয়সে সন্তানের জনক হওয়ার পর হাসপাতালে নবজাতককে দেখতে যাচ্ছেন বিস্ময় সৃষ্টিকারী মৌলভি আবুল ওয়ালা
১১০ বছর বয়সে সন্তানের জনক হওয়ার পর হাসপাতালে নবজাতককে দেখতে যাচ্ছেন বিস্ময় সৃষ্টিকারী মৌলভি আবুল ওয়ালা

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম : ১১০ বছর বয়সে ফুটফুটে একটি পুত্রসন্তানের জন্ম দিয়ে রীতিমতো তাক লাগিয়ে দিয়েছেন চট্টগ্রামের সন্দ্বীপ উপজেলার মৌলভি আবুল ওয়ালা খান।
নিজের সঠিক জন্মতারিখ এবং প্রকৃত বয়স জানাতে না পারলেও আবুল ওয়ালা জানান, তার শত বছর বয়স পেরিয়েছে আরো ১০ বছর আগেই। সেই হিসাবে তার বর্তমান বয়স ১১০ বছর।

আবুল ওয়ালার প্রথম স্ত্রী মারা গেছেন ৩৫ বছর আগে, তার বয়স যখন ৭৫ বছর। এরপর দীর্ঘদিন সন্তানসন্ততি আর নাতিপুতি নিয়ে থাকলেও আট বছর আগে মৌলভি আবুল ওয়ালা দ্বিতীয় বিয়ে করেন নূরনাহার বেগমকে। ওই সময় তার স্ত্রীর বয়স ছিল ২৭ বছর। বর্তমানে নূরনাহার বেগমের বয়স ৩৫ বছর।

১১০ বছরের আবুল ওয়ালা আর ৩৫ বছরের নূরনাহার দম্পতির সংসারে রোববার রাতে সন্দ্বীপ মেডিক্যাল সেন্টারে জন্ম হয়েছে ফুটফুটে একটি পুত্রসন্তানের। কোনো ধরনের ঝুঁকি ছাড়াই নূরনাহার বেগমের স্বাভাবিক প্রসব হয়েছে বলে জানা গেছে।

নিজের পুত্রসন্তানের জন্মের খবরে অন্যের সাহায্য নিয়ে হাসপাতালে ছুটে যান বৃদ্ধ আবুল ওয়ালা। অপরদিকে ১১০ বছর বয়সে সন্তানের জনক হয়ে আলোড়ন সৃষ্টি করার খবরে বৃদ্ধ আবুল ওয়ালাকে দেখতে হাসপাতালে ভিড় করে অসংখ্য মানুষ।

সন্দ্বীপ মেডিক্যাল সেন্টারের চিকিৎসক ডা. রিয়াজ উদ্দীন (রুবেল) রাইজিংবিডিকে জানান, চিকিৎসাশাস্ত্রে সাধারণত ৭০-৭৫ বছর বয়স পর্যন্ত একজন পুরুষের শুক্রাণু সক্রিয় থাকে। চিকিৎসাবিজ্ঞানে অনেকটা বিস্ময় সৃষ্টি করে ১১০ বছর বয়সে সন্তানের জনক হয়েছেন মৌলভি আবুল ওয়ালা।

স্বাভাবিক একটি শিশু জন্ম দেওয়ার পর মা ও শিশু উভয়ই সুস্থ রয়েছেন বলে চিকিৎসক রুবেল নিশ্চিত করেন।

উল্লেখ্য, মৌলভি আবুল ওয়ালা সন্দ্বীপ উপজেলার হরিশপুর ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা। তার আগের সংসারে অনেক বয়স্ক নাতিপুতি রয়েছে বলে জানা গেছে।-: রাইজিংবিডি






মন্তব্য চালু নেই