মেইন ম্যেনু

১৬ বছর পর দুই পর্বতারোহীর মৃতদেহের সন্ধান

তুষারধসে চাপা পড়ার ১৬ বছর পর হিমলায় পর্বতে দুই মার্কিন পর্বতারোহীর মৃতদেহের সন্ধান পাওয়া গেছে। গত সপ্তাহে দুই পর্বতারোহী এই মৃতদেহ দুটির সন্ধান পান। সোমবার বিবিসি এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

১৯৯০ সালের অক্টোবরে পর্বতারোহী অ্যালেক্স লোয়ি ক্যামেরাম্যান ডেভিড ব্রিজেসকে সঙ্গে নিয়ে হিমলায়ের ৮ হাজার ১৩ মিটার উঁচুতে শিশাপাংমা শৃঙ্গে আরোহন করেন। এর কিছুক্ষণ পরেই তারা তুষারঝড়ের কবলে পড়েন। বরফচাপা অবস্থায় সেখানেই তাদের মৃত্যু হয়। গত সপ্তাহে দুই পর্বাতারোহী তাদের মৃতদেহের সন্ধান পান। তবে মৃতদেহ দুটি এখনো বরফের ভেতরে আটকে আছে।

শুক্রবার অ্যালেক্স লোয়ির স্ত্রী জেনিফার লোয়ি-অ্যাংকার মৃতদেহ খুঁজের পাওয়ার বিষয়টি জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘দীর্ঘ সময়ে তারা বরফে জমে শীতল হয়ে গেছে।’

২০০১ সালে কর্নার্ড অ্যাংকার নামে এক ব্যক্তির সঙ্গে বিয়ে বন্ধনে আবদ্ধ হয়েছেন জেনিফার। কর্নার্ডের সঙ্গে যৌথভাবে প্রাক্তন স্বামীর নামে একটি দাতব্য সংস্থা পরিচালনা করেন তিনি। অ্যালেক্স ও ব্রিজেসের মৃতদেহ খোঁজ পাওয়ার বিষয়টি জানতে পেরে গত সপ্তাহেই দুই পর্বাতারোহীকে নিয়ে শিশাপাংমা শৃঙ্গে আরোহন করেছিলেন অ্যাংকার। তবে মৃতদেহ দুটি এখনো উদ্ধার সম্ভব হয়নি।






মন্তব্য চালু নেই