মেইন ম্যেনু

২৪ বছরের রেকর্ড ভাঙলেন রাবাদা

১১৪তম দক্ষিণ আফ্রিকার আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার হিসেবে শুক্রবার বাংলাদেশের বিপক্ষে অভিষেক হয় পেসার কাগিসো রাবাদা। অভিষেক ম্যাচেই আলো ছড়ান তিনি। দুর্দান্ত বোলিং কারিশমায় দুটি রেকর্ড নিজের নামের পাশে যোগ করেন তিনি।

অভিষেক ম্যাচে প্রথম পেসার হিসেবে হ্যাটট্রিক তুলে নেন কাগিসো রাবাদা। ক্রিকেট ইতিহাসের দ্বিতীয় বোলার হিসেবে এই রেকর্ডটি গড়েন রাবাদা। এর আগে বাংলাদেশের স্পিনার তাইজুল ইসলাম অভিষেক ম্যাচে হ্যাটট্রিক তুলে নেন।

এদিকে হ্যাটট্রিক তুলে নেওয়ার পাশাপাশি প্রথম দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকেটার হিসেবে ছয় উইকেট নেওয়ার অনন্য রেকর্ড গড়েছেন ডানহাতি এই পেসার। এর আগে দলটির প্রাক্তন পেসার অ্যালন ডোনাল্ড ১৯৯১ সালের ১০ নভেম্বর কলকাতার ইডেন গার্ডেনে নিজের অভিষেক ম্যাচে ভারতের বিপক্ষে ২৯ রানে ৫ উইকেট নিয়েছিলেন। ৮.৪ ওভার বোলিং করেন এই কিংবদন্তি।

শুক্রবার মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে পরপর তিন বলে তামিম ইকবাল, লিটন দাস ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদকে আউট করেন রাবাদা। ইনিংসের চতুর্থ ও ব্যক্তিগত দ্বিতীয় ওভারে কাগিসো রাবাদার বলে বোল্ড হন তামিম ইকবাল। দ্বিতীয় বলে ফারহাদ বেহারদিনকে ক্যাচ দেন লিটন কুমার দাস। তৃতীয় বলে মাহমুদউল্লাহকে এলবিডব্লিউর ফাঁদে ফেলে হ্যাটট্রিকের কৃতিত্ব করেন তিনি।

এর আগে ২০১৪ সালের ১ ডিসেম্বর বাংলাদেশের বাহাতি স্পিনার তাইজুল ইসলাম জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে নিজের অভিষেক ম্যাচে হ্যাটট্রিক তুলে নেন। তাইজুলের ঘূর্ণিতে পরাস্ত হন পানিয়াঙ্গারা, নিয়ম্বু ও চাতারা।

হ্যাটট্রিক তুলে নেওয়ার পর একই স্পেলে সৌম্য সরকারকেও সাজঘরের পথ দেখান রাবাদা।

এরপর ২৭ তম ওভারে অধিনায়ক হাশিম আমলা রাবাদার হাতে আবারও বল তুলে নেন। নাসিরকে করা ওই ওভারে কোনো রান আসেনি। পরের ওভারেই আবারও উইকেট তুলে নেন। টাইগার দলপতি মাশরাফি বিন মর্তুজা রাবাদার স্লোয়ার শর্ট বলে ফ্লিক করতে গিয়ে উইকেটের পিছনে ক্যাচ দেন।

৩১তম ওভারের শেষবারের মত বল হাতে নেন এই প্রোটিয়া। ওভারের পঞ্চম বলে জুবায়ের হোসেনকে সরাসরি বোল্ড করে ডোনাল্ডকে ছাড়িয়ে যাওয়ার পাশাপাশি নিজের নাম সবার উপরে লিখিয়ে নেন। ৮ ওভারে ৩ মেডেনে মাত্র ১৬ রানে ৬ উইকেট নিয়ে বাংলাদেশ শিবির একাই ধসিয়ে দিয়েছেন অভিষিক্ত এই পেসার। অভিষেক ম্যাচে রাদাবাই প্রথম ছয় উইকেট নেওয়ার কৃতিত্ব গড়লেন। এর আগে তাইজুল নিয়েছিলেন ৪ উইকেট।

দীর্ঘ ২৪ বছরের অ্যালোন ডোনাল্ডের রেকর্ড নিজের কওে নিলেন রাবাদা। অভিষেক ম্যাচে দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে চার উইকেট নিয়েছেন ৬ বোলার। এর মধ্যে শন পোলক, ইমরান তাহির ও ফিনল্যান্ডারের মত বোলারও রয়েছে। কিন্তু কেউই ডোনাল্ডের রেকর্ড ভাঙতে পারেনি। সেক্ষেত্রে রাবাদাকে ভাগ্যবান বলাই যাই!






মন্তব্য চালু নেই