মেইন ম্যেনু

৬ পাঁজর অপসারণ করে স্বপ্নপূরণ

মানুষের মন কত বিচিত্র।শখের বশে মানুষ কত কিছুই না করে।যেমনটি করেছেন সুইডেনের এক নারী।নিজেকে প্রিয় কার্টুনের চরিত্রের মত তৈরি করতে তিনি দেহের ছয়টি পাঁজরই সরিয়ে ফেলেছেন! তার দেহে মোট ১৭ বার অস্ত্রোপচার করতে হয়েছে।আর এতে তিনি সফল হয়েছেন।পিক্সি ফক্স নামে ওই নারী এখন তার প্রিয় নারী কার্টুন চরিত্র ‘জেসিকা র‍্যাবিট’ এর মত অবিকল দেখতে। এতে তার খরচ হয়েছে ৮০ হাজার ব্রিটিশ পাউন্ড(বাংলাদেশি মুদ্রায় ৯২ লাখ ৫১ হাজার টাকা)। বিশাল অংকের এই অর্থ ব্যয় হয়েছে নানা খাতে। এর মধ্যে পাঁজর সরানো বাবদ ছয় হাজার পাউন্ড এবং বাকি অর্থ ব্যয় হয়েছে- চারটি স্তন প্রতিস্থাপন, ব্রাজিলিয়ান বাট লিফট(উঁচু নিতম্ব) এবং ল্যাবিপ্লাস্টি(যোনির সামনের অংশ)। এতো কিছু করার পর পিক্সির কোমর এখন মাত্র ১৬ ইঞ্চি। পিক্সি জানায়, কার্টুন নায়িকার মত হওয়া ছিল তার দীর্ঘ দিনের স্বপ্ন।

পঁচিশ বছর বয়সী সাবেক এই বিদ্যুৎমিস্ত্রি ২৪ ঘন্টাই ওয়েস্ট ট্রেনার(কোমড় চিকন করার পোশাক) পড়ে থাকতেন। গত অক্টোবরে পাঁচ ঘণ্টাব্যাপী অস্ত্রোপচার হয় তার দেহে।

পিক্সি ফক্স বলেন, আমি আমার ছয়টি পাঁজর অপসারণ করেছি। এই প্রথম বারের মত আমিই এটি করতে পেরেছি। যতদিন আমার শরীরের কোনো ক্ষতি না হয় ততদিন এই প্রক্রিয়া চালিয়ে যাব। কারণ এটি আমার স্বপ্ন। আমি আসলে এটিই করতে চেয়েছিলাম।

পিক্সি এখন নিজেকে ‘সার্জারি মডেল’ বলে থাকেন। তার প্রিয় কার্টুন চরিত্র হচ্ছে জেসিকা এবং ওয়াল্ট ডিজনির অরোরা।

পিক্সি বলেন, লোকজন প্রায়ই আমার কাছে এসে বলে, দয়া করে অন্য ভাবে নিবেন না, আপনাকে দেখতে কার্টুনের মত লাগছে। আমি এসব কথাকে উপভোগ করি। কারণ এটিই অর্জন করতে চেয়েছিলাম। আমি মনে করি, ওইসব কার্টুন চরিত্রগুলো আদর্শ নারী দেহের প্রতিরুপ।

পিক্সি ফক্স আরও বলেন, আমি চিকন কোমড়, উঁচু নিতম্ব, বড় স্তন, ডাগর চোখ এবং একটি সুন্দর চেহেরা চেয়েছিলাম। পাঁজর অপরসারণ এই আদর্শ অর্জনে একটি ধাপ ছিল।

পিক্সি বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্রে থাকেন। ইনস্টাগ্রামে পিক্সির ফলোয়ারের সংখ্যা ৮৫ হাজার। যারা তার এই পরিবর্তনের সাক্ষী। অনুসারীদের কেউ কেউ তাকে অস্ত্রোপচারে টাকা জোগাতে সহায়তা করেছেন। অতিরিক্ত অস্ত্রোপচার ও ব্যায়াম তার শারীরিক গঠন আমূল পরিবর্তন করে দিয়েছে। অস্ত্রোপচারের আগে তার শরীরে মাপ ছিল ৩০-২৪-৩৪। আর এখন হয়েছে ৩৮-১৬-৩৯। সূত্র: দ্য সান।






মন্তব্য চালু নেই